×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৯ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

৩ মাসেই দেশে মিলবে অক্সফোর্ড টিকা, ১ হাজার টাকার মধ্যে

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ২০ নভেম্বর ২০২০ ১১:০৭
অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বানানো কোভিড টিকা। -ফাইল ছবি।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বানানো কোভিড টিকা। -ফাইল ছবি।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বানানো কোভিড টিকা ভারতে তিন মাসের মধ্যেই চালু হয়ে যাবে বলে জানালেন সিরাম ইনস্টিটিউটের চিফ এগজিকিউটিভ অফিসার (সিইও) আদর পুনাওয়ালা। টিকা চালু হবে দু’দফায়। ফেব্রুয়ারি ও এপ্রিলে। প্রথমে টিকা দেওয়া হবে স্বাস্থ্যকর্মী ও প্রবীণদের। আমজনতার জন্য টিকা মিলবে এপ্রিল থেকে।

সিরাম কর্তা জানিয়েছেন, ভারতে অক্সফোর্ডের বানানো কোভিড টিকার দাম ১ হাজার টাকার মধ্যেই হবে। দেওয়া হবে প্রাথমিক ভাবে জরুরি দু’টি ডোজ।

তবে পুনাওয়ালা এও জানিয়েছেন, সব কিছু নির্ভর করছে চূড়ান্ত পর্বের ট্রায়ালের সাফল্য ও টিকা বানানোর সরকারি অনুমোদনের উপর।

Advertisement

দিল্লিতে একটি অনুষ্ঠানে শুক্রবার পুনাওয়ালা জানান, দেশের সব মানুষকে ওই টিকা দেওয়ার জন্য আরও ২/৩ বছর সময় লাগবে। সকলেই যদি ইচ্ছুক হন, ত হলে ২০২৪ সালের মধ্যেই ভারতের সব নাগরিককে কোভিড টিকা দেওয়া সম্ভব হবে বলে মনে করেন সিরাম কর্তা।

আরও পড়ুন: মেলেনি পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া, বড়দিনের আগেই বাজারে টিকা, জানাল ফাইজার-সহযোগী

আরও পড়ুন: আমেরিকা-ভারত প্রতিরক্ষা সম্পর্ক ছিন্ন করতে উদ্যত চিন, দাবি নথিতে

পুনাওয়ালার কথায়, ‘‘এই যে বলছি দেশের সব নাগরিককে টিকা দিতে আরও ২/৩ বছর সময় লাগবে, তার কয়েকটি কারণ রয়েছে। সমস্যাটা যে টিকা সরবরাহেরই, তা কিন্তু নয়। অন্যান্য কারণও আছে।’’

সেগুলি কী কী তা-ও জানিয়েছেন সিরাম কর্তা। প্রথমত, পর্যাপ্ত বাজেট নিয়ে অনিশ্চয়তা। দ্বিতীয়ত, সেই টিকা দেশের প্রত্যন্ত, দুর্গম প্রান্তের কোণায় কোণায় পৌঁছে দেওয়ার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা। তৃতীয়ত, টিকাকরণের সঠিক পরিকাঠামোর অপ্রতুলতা। চতুর্থত, দেশের সব মানুষই টিকা নিতে রাজি হবেন কি না তা নিয়ে সংশয়।

তবে তাঁর আশা, সব প্রতিবন্ধকতা কাটিয়ে ওঠার পর যদি দেশের সব মানুষ দুই ডোজের টিকা নিতে রাজি হন, তা হলে আমজনতাকে সেই টিকা ২০২৪ সালের মধ্যেই দেওয়া সম্ভব হবে।

অক্সফোর্ড টিকার দাম নিয়ে পুনাওয়ালার বক্তব্য, ‘‘অনেক বেশি পরিমাণে কিনছে বলে সরকারের টিকা কিনতে খরচ আরও কম হবে। আমরা চেষ্টা করেছি টিকার দাম যতটা সম্ভব কম রাখতে। যাতে তা সব মানুষের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যেই থাকে।’’

Advertisement