Advertisement
২৭ নভেম্বর ২০২২
Supreme Court

‘পিএম কেয়ার্স’-এর অর্থ জাতীয় ত্রাণ তহবিলে হস্তান্তর করা যাবে না: সুপ্রিম কোর্ট

চলতি বছরের ২৮ মার্চ ‘পিএম কেয়ার্স’ ফান্ড বা তহবিল গঠন করেছিল নরেন্দ্র মোদী সরকার।

ছবি: সংগৃহীত।

ছবি: সংগৃহীত।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ১৮ অগস্ট ২০২০ ১৩:১৪
Share: Save:

কোভিডের মতো অতিমারিতে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য গঠিত ‘পিএম কেয়ার্স’ তহবিলের অর্থ প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে হস্তান্তর করা যাবে না। সাফ জানিয়ে দিল সুপ্রিম কোর্ট। মঙ্গলবার এই সংক্রান্ত একটি আবেদন খারিজ করে শীর্ষ আদালত আরও জানিয়েছে, এটি গঠন করা হয়েছে গণ দাতব্য তহবিল (পাবলিক চ্যারিটেবল ফান্ড) হিসাবে। সেই সঙ্গে এই ফান্ডের যৌক্তিকতা নিয়ে প্রশ্ন উঠলেও কার্যত একে বৈধতাও দিল সুপ্রিম কোর্ট। এই ফান্ডের অর্থ জাতীয় ত্রাণ তহবিলে হস্তান্তর করার জন্য কেন্দ্রকে নির্দেশ দিতেও অস্বীকার করেছে শীর্ষ আদালত।

Advertisement

এ দিন সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি অশোক ভূষণ, বিচারপতি আর সুভাষ রেড্ডি এবং বিচারপতি এম আর শাহের তিন সদস্যের বেঞ্চ এই ফান্ড নিয়ে আবেদনের ভিত্তিতে রায় ঘোষণা করে। ‘পিএম কেয়ার্স’ ফান্ড গঠনের যৌক্তিকতা নিয়ে বিরোধীরা বার বার প্রশ্ন তুললেও তার বৈধতাকেও মান্যতা দিয়েছে শীর্ষ আদালত। আদালতের পর্যবেক্ষণ, “গণ দাতব্য তহবিল হিসাবেই এর বৈধতা রয়েছে। এর সমস্ত অর্থ প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে হস্তান্তর করার প্রয়োজন নেই।” একই সঙ্গে আদালত জানিয়েছে, যে কোনও ব্যক্তি বা সংস্থা জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলার জন্য গঠিত প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে অর্থসাহায্য করতে পারে।

করোনার মতো অতিমারির আবহে চলতি বছরের ২৮ মার্চ প্রাইম মিনিস্টার্স সিটিজেন অ্যাসিস্ট্যান্স অ্যান্ড রিলিফ ইন ইমার্জেন্সি সিচুয়েশন্স বা ‘পিএম কেয়ার্স’ ফান্ড বা তহবিল গঠন করেছিল নরেন্দ্র মোদী সরকার। মূলত কোভিডের ফলে ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তার জন্য তা গঠিত হয়েছিল। পদাধিকার বলে প্রধানমন্ত্রী ওই ফান্ডের চেয়ারম্যান এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রী তহবিলের ট্রাস্টি হন। তবে দেশে যে কোনও ধরনের বিপর্যয় মোকাবিলার জন্য জাতীয় ত্রাণ তহবিল (ন্যাশনাল ডিজাস্টার রিলিফ ফান্ড বা এনডিআরএফ) থাকতে ফের কেন আরও একটি ফান্ড গঠন করা হল, তা নিয়ে একাধিক বার প্রশ্ন তুলেছে বিরোধীরা। এ নিয়ে তথ্য দিতে আরটিআই দাখিল করলেও প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে তা খারিজ করে দেওয়া হয়। তবে ‘পিএম কেয়ার্স’ফান্ডের অর্থ হস্তান্তরের আবেদন খারিজ করলেও সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণ, “কোভিড-১৯ মোকাবিলার জন্য ২০১৯-এর নভেম্বরে গঠিত জাতীয় ত্রাণ তহবিলই যথেষ্ট। তার জন্য আলাদা করে নয়া অ্যাকশন প্ল্যান বা ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় পৃথক ন্যূনতম ব্যবস্থা গ্রহণের প্রয়োজন নেই।”

আরও পড়ুন: ফের হাসপাতালে অমিত শাহ, পর্যবেক্ষণে থাকবেন ২৪ ঘণ্টা

আরও পড়ুন: দেশে সংক্রমণ হার কমে ৬.১২ শতাংশ, মোট আক্রান্তের ৭৩ শতাংশই সুস্থ

Advertisement

আইনজীবী প্রশান্ত ভূষণের মারফত সেন্টার ফর পাবলিক ইন্টারেস্ট লিটিগেশন বা সিপিআইএল নামক এক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সুপ্রিম কোর্টের কাছে আবেদন জানিয়েছিল, ‘পিএম কেয়ার্স’ ফান্ডের অর্থ জাতীয় ত্রাণ তহবিলে হস্তান্তর করা হোক। এ বিষয়ে ওই আবেদনে কেন্দ্রের নির্দেশ প্রার্থনা করা হয়েছিল। তবে এ দিন তা খারিজ করে দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.