Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

রাজ্যসভা জুড়ে বিরোধীদের ‘শেম, শেম’, তার মধ্যেই শপথ রঞ্জন গগৈয়ের

বিরোধীদের এই আচরণকে ‘চুড়ান্ত অন্যায়’ বলেই ব্যাখ্যা করছেন কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ১৯ মার্চ ২০২০ ১৫:৫৮
Save
Something isn't right! Please refresh.
বিরোধীদের হট্টগোলের মাঝেই রাজ্যসভায় শপথগ্রহণ রঞ্জন গগৈয়ের। ছবি: পিটিআই

বিরোধীদের হট্টগোলের মাঝেই রাজ্যসভায় শপথগ্রহণ রঞ্জন গগৈয়ের। ছবি: পিটিআই

Popup Close

বিতর্কের উত্তাপ ছিলই। বৃহস্পতিবার দেশের প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ রাজ্যসভায় শপথ নিতে পৌঁছতেই তার আঁচ আরও গনগনে হয়ে উঠল। কংগ্রেস-সহ বিরোধী সাংসদরা তুমুল স্বরে ‘শেম শেম’ ধ্বনি তুললেন। আর তার মধ্যেই শপথ নিলেন রঞ্জন গগৈ। বিরোধীদের এই আচরণকে ‘চুড়ান্ত অন্যায়’ বলেই ব্যাখ্যা করছেন কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ। কিন্তু কংগ্রেসের অভিযোগ, এটা সংবিধানের উপর ‘নজিরবিহীন আঘাত।’

মাস চারেক আগে কর্মজীবন থেকে অবসর নিয়েছেন রঞ্জন গগৈ। তাঁর আমলেই রামমন্দির, রাফাল, অসমে এনআরসি-সহ একাধিক মামলার ঐতিহাসিক রায়-ও দেওয়া হয়েছে। এ দিন সেই রঞ্জন গগৈ-ই শপথ নেওয়ার জন্য পৌঁছন রাজ্যসভায়। এর পরই তৈরি হয় নাটকীয় পরিস্থিতি। তিনি যখন রাজ্যসভার সদস্য হিসাবে শপথ নিচ্ছেন তখন নজিরবিহীন ভাবে ‘শেম, শেম’ ধ্বনি তোলেন কংগ্রেস-সহ বিরোধীরা। প্রতিবাদ জানিয়ে সমাজবাদী পার্টি ছাড়া অন্যান্য সব বিরোধী সাংসদই ওয়াকআউট করেন এ দিন।

কংগ্রেস নেতা অভিষেক মনু সিঙ্ঘভির অভিযোগ, ‘‘আমাদের সংবিধান বিচারব্যবস্থা ও সরকার এই দুইয়ের মধ্যে ক্ষমতার বিভাজন করেছে। বিচারব্যবস্থা আস্থা ও বিশ্বাসের ভিতের উপর দাঁড়িয়ে। কিন্তু ওরা প্রত্যেকেই আঘাত করছে।’’ কংগ্রেসের সুরেই বিজেপিকে বিঁধেছেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ মহুয়া মৈত্র। বলছেন, ‘‘তিনি একটি প্রতিষ্ঠানকে কালিমালিপ্ত করেছেন। তিনি গোটা পৃথিবীর চোখে ভারতকে হেয় করেছেন। এটা লজ্জার যে, এক জন ব্যক্তি প্রধান বিচারপতি থাকাকালীন, নিজের আত্মা বিক্রি করেছেন রাজ্যসভার আসনের জন্য।’’

Advertisement

আরও পড়ুন: করোনার জেরে বাতিল বহু উড়ান, ধুঁকছে একাধিক সংস্থা, পুনরুজ্জীবন প্যাকেজের ভাবনা কেন্দ্রের​

গগৈয়ের পাশে দাঁড়িয়েছেন কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর। কংগ্রেসের ওয়াকআউটকে নিশানা করে তাঁর বক্তব্য, ‘‘রাজ্যসভায় বিভিন্ন ক্ষেত্র থেকে বহু বিশিষ্ট মানুষের নির্বাচিত হওয়ার ঐতিহ্য আছে। তার মধ্যে প্রধান বিচারপতিরাও রয়েছেন। বিচারপতি গগৈ-ও তাঁর সেরাটা দেবেন। এটা (কংগ্রেস-সহ বিরোধীদের ওয়াকআউট) করা ঘোরতর অন্যায় হয়েছে।’’ গগৈয়ের হয়ে ব্যাট ধরেছেন রাজ্যসভার ভাইস চেয়ারম্যান বেঙ্কাইয়া নায়ডুও।

আরও পড়ুন: কেরল থেকে ফিরেই জ্বর, ডেন্টাল কলেজের দুই ছাত্রী ভর্তি এনআরএসে​

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement