Advertisement
০৭ ডিসেম্বর ২০২২
Suriya Sivakumar

নিট-পড়ুয়াদের নিয়ে টুইট, ভুল অনুবাদেই বিচারপতির রোষে তামিল সুপারস্টার সূর্য!

গত সপ্তাহে তামিলনাড়ুতে মৃত্যু হয় তিন নিট পরীক্ষার্থীর। অভিযোগ, পরীক্ষার চাপেই আত্মহত্যা করেন তাঁরা। ওই ঘটনা নিয়ে টুইট করেন সূর্য।

সূর্য শিবকুমার।  ছবি: সংগৃহীত।

সূর্য শিবকুমার। ছবি: সংগৃহীত।

সংবাদ সংস্থা
চেন্নাই শেষ আপডেট: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ ২০:৩৮
Share: Save:

তিন নিট পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনা নিয়ে মন্তব্য করে বিপাকে তামিল ফিল্মের সুপারস্টার সূর্য শিবকুমার। তাঁর বিরুদ্ধে স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে আদালত অবমাননার মামলা দায়ের করার আর্জি জানিয়েছেন মাদ্রাজ হাইকোর্টের এক বিচারপতি। তবে সত্যিই কি সূর্যের মন্তব্য অবমাননাকর? দেখা গিয়েছে, সূর্যের মন্তব্য তামিল থেকে ইংরেজিতে অনুবাদ করতে গিয়েই যাবতীয় বিভ্রাট ঘটেছে। তবে ওই বিচারপতির পাশাপাশি রাজ্যের কট্টরপন্থীদেরও রোষের মুখে পড়েছেন তামিল সুপারস্টার।

ঠিক কী ঘটেছিল? গত সপ্তাহে তামিলনাড়ুতে মৃত্যু হয় তিন নিট পরীক্ষার্থীর। অভিযোগ, পরীক্ষার চাপেই আত্মহত্যা করেন তাঁরা। ওই ঘটনা নিয়ে টুইট করেন সূর্য। এর পরই মাদ্রাজ হাইকোর্টের মুখ্য বিচারপতি অমরেশ্বর প্রতাপ শাহির কাছে সূর্যের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ করেন বিচারপতি এস এম সুব্রহ্মণ্যম।

পড়ুয়াদের আত্মহত্যার ঘটনা তাঁর বিবেককে নাড়িয়ে দিয়েছে বলে মন্তব্য করে তামিলে টুইট করেছিলেন সূর্য। তিনি লিখেছেন, “করোনাতঙ্কে জীবনের ভয় থাকলেও আদালত (যা রায়দান করে) ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে পড়ুয়াদের বলে, নির্ভয়ে পরীক্ষাকেন্দ্রে গিয়ে পরীক্ষা দিতে।” এর পরই বিচারপতি সুব্রহ্মণ্যম সূর্যের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ করেন। মুখ্য বিচারপতির কাছে একটি চিঠিতে তিনি লিখেছেন, “আমার মতে, (সূর্যের) ওই বিবৃতি আদালত অবমাননার সমান। কারণ, এতে মাননীয় বিচারপতি ছাড়াও এই মহান দেশের বিচারব্যবস্থার সততা ও নিষ্ঠাকেই কেবলমাত্র ক্ষুণ্ণ করা হয়নি, সেই সঙ্গে তার সমালোচনাও করা হয়েছে। এতে বিচারব্যবস্থার প্রতি জনমানসে আস্থাভঙ্গের ঝুঁকি রয়েছে।”

Advertisement

আরও পড়ুন: সকলের জন্য করোনা-টিকা ২০২৪-এর আগে নয়, দাবি সিরাম ইনস্টিটিউটের

তবে সূর্যের এই টুইটের যে অনুবাদ সংবাদমাধ্যমের কাছে পৌঁছয় তাতে দেখা গিয়েছে, বিচারপতি সুব্রহ্মণ্যম নিজের মতো করে তার অনুবাদ করেছেন। এবং তাতেই বিপত্তি ঘটেছে। অনুবাদের ভুলে সূর্যের টুইটের মর্ম দাঁড়িয়েছে, “ওই বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বিচারপতিরা নিজেরা জীবনের ভয় পাচ্ছেন এবং ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে বিচার করছেন। যদিও নিট পরীক্ষার্থীদের নির্ভয়ে পরীক্ষা দিতে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়ার তাঁদের কোনও নৈতিকতাই নেই।”


সূর্যের ওই টুইটের পর তা নিয়ে জলঘোলা হলেও অভিনেতার পাশে দাঁড়িয়েছেন তাঁর ফ্যান থেকে শুরু করে মাদ্রাজ হাইকোর্টের ছ’জন প্রাক্তন বিচারপতি। সূর্যের বিরুদ্ধে যাতে কোনও কঠিন পদক্ষেপ না করা হয়, সে আর্জিও জানিয়েছেন মুখ্য বিচারপতির কাছে। তাঁরা লিখেছেন, “সূর্য যে ভাবে হাজার হাজার দুঃস্থ পড়ুয়াদের পাশে দাঁড়িয়েছেন, তা মাথায় রেখে এ ক্ষেত্রে আমাদের উদারতা দেখানো উচিত। এক জন শিল্পীর প্রতিক্রিয়াকে এ ভাবে প্রেক্ষাপটের বাইরে নিয়ে গিয়ে গুরুত্ব দিয়ে দেখা উচিত নয়। এ নিয়ে যাতে অযথা বিতর্ক না হয়, সে জন্য আদালতের দ্বারস্থ হওয়া আমাদের কর্তব্য।”

Advertisement

আরও পড়ুন: পরোয়ানা ছাড়াই তল্লাশি-গ্রেফতার, নয়া পুলিশ আইন উত্তরপ্রদেশে

শুধুমাত্র ওই বিচারপতিরাই নন, নিজের ভক্তকুলের কাছ থেকে সমর্থন পেয়েছেন সূর্য। সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর স্বপক্ষে দেখা গিয়েছে #টিএনস্ট্যান্ডউইথসূর্য।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.