×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২০ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

পার্সেলের ভেতরে সাপ দিয়ে গেল ক্যুরিয়ার কোম্পানি! তারপর?

সংবাদ সংস্থা
রায়রঙ্গপুর, ওড়িশা ২৬ অগস্ট ২০১৯ ১৬:০৫
অলঙ্করণ: তিয়াসা দাস।

অলঙ্করণ: তিয়াসা দাস।

অনলাইনে কত কিছুই অর্ডার দিই আমরা। কখনও কখনও মোবাইলের বদলে সাবান, পাথরের টুকরোও এসে পৌঁছয়। কিন্তু তা বলে জ্যান্ত কোবরা? এমনই এক অভিজ্ঞতা হল বর্তমানে ওড়িশার বাসিন্দা এক ব্যক্তির। পার্সেল খুলেই চমকে ওঠেন ওই ব্যক্তি। ভেতরে সাপ! খবর দেন বন দফতরে।

দিন পনেরো আগে একটি পার্সেল বুক করেন অন্ধ্রপ্রদেশের বিজয়ওয়াড়ার এস মুথুকুমারণ। বর্তমানে তিনি ওড়িশায় ময়ূরভঞ্জ জেলার রায়রঙ্গপুরের বাসিন্দা। পার্সেল ডেলিভারির ঠিকানা দেওয়া হয় রায়রঙ্গপুরের বাড়ির। একটি ক্যুরিয়ার কোম্পানি ৯ অগস্ট অন্ধ্রপ্রদেশের গুন্টুর থেকে পার্সলটি প্যাক করে পাঠায়। মুথুকুমারণের ওড়িশার বাড়িতে পৌঁছয় রবিবার।

উত্সাহ নিয়ে পার্সেলটি খোলেন মুথুকামারণ। কিন্তু খুলতেই চমকে ওঠেন। ভেতরে যে একটি জলজ্যান্ত কোবরা। সঙ্গে সঙ্গে সেটিকে সাবধানে সরিয়ে রেখে বন দফতরে খবর দেন। তাদেরকে জানান, বাড়িতে আসা পার্সেলের ভিতরে রয়েছে একটি সাপ। সঙ্গে সঙ্গে উদ্ধারকারী দল পৌঁছয়। সাপটিকে উদ্ধার করে তার প্রাকৃতিক বাসস্থানে ছেড়ে দেয়।

Advertisement

আরও পড়ুন : ১ টাকা খরচেই বাড়িতে বসে সুগার, হিমোগ্লোবিন টেস্ট, যন্ত্র আবিষ্কার খড়গপুর আইআইটি-র

আরও পড়ুন : অভিনব পদ্ধতিতে পড়িয়ে নেটিজেনদের হৃদয় জয় ‘ড্যান্সিং স্যার’-এর

মুথুকুমারণ জানিয়েছেন, সাপটি কোনও ভাবে পার্সেলের মধ্যে ঢুকে পড়েছে হয়তো। তবে তিনি যা আনাতে চেয়েছিলেন, সেটি বাক্সের মধ্যে ছিল কিনা তা জানা যায়নি। এমনও হতে পারে পার্সেল প্যাক হওয়ার পরে কোনও একটি সময় সাপটি বাক্সটির ফাঁক দিয়ে ঢুকে পড়েছে।

Advertisement