Advertisement
৩১ জানুয়ারি ২০২৩
Amazon

অ্যামাজনে বুক করা ফোন ক্রেতার বদলে অন্যকে বেচে দিল ডেলিভারি বয়

অ্যামাজনের তরফে জানানো হয়, তাদের সিস্টেমে যে আপডেট নথিবদ্ধ রয়েছে তাতে দেখাচ্ছে ফোনটি ক্রেতার কাছে ডিলিভারি হয়ে গিয়েছে। তখনই ওই ক্রেতা বুঝতে পারেন, ডেলিভারি বয় কোনও প্রতারণা করেছে।

প্রতীকী চিত্র।

প্রতীকী চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৬ অক্টোবর ২০২০ ১৭:৪৫
Share: Save:

ক্রেতার হাতে ফোন না দিয়ে অন্যকে বিক্রি করে দেওয়ার অভিযোগে গ্রেফতার দিল্লির এক অ্যামাজন ডেলিভারি বয়। প্রথমে ক্রেতাকে ভুল বুঝিয়ে ফোনটি নিজের কাছে রেখে দেয় সে। পরে তা বিক্রি করে দেয় অন্যকে। ক্রেতা অভিযোগ জানানোর পর তদন্তে নেমে পুলিশ গ্রেফতার করে অভিযুক্ত ডেলিভারি বয়কে।

Advertisement

ঘটনার দিন দিল্লির কিদোয়াই নগরে একটি বাড়িতে পার্সল ডেলিভারি করার কথা ছিল মনোজ নামে অ্যামাজনের ওই ডেলিভারি বয়ের। সে ক্রেতার দরজা পর্যন্ত যায়ও। কিন্তু সেখানে গিয়ে ক্রেতাকে বলে, ‘কোনও ভাবে অর্ডারটি ক্যানসেল হয়ে গিয়েছে। তাই এটি আর দেওয়া যাবে না। তবে কয়েক দিনের মধ্যেই টাকা ফেরত চলে যাবে ক্রেতার অ্যাকাউন্টে’।

কয়েক দিন কেটে যাওয়ার পরেও টাকা ফেরত না পেয়ে, অ্যামাজনের সঙ্গে যোগাযোগ করেন ওই ক্রেতা। অ্যামাজনের তরফে জানানো হয়, তাদের সিস্টেমে যে আপডেট নথিবদ্ধ রয়েছে তাতে দেখাচ্ছে ফোনটি ক্রেতার কাছে ডিলিভারি হয়ে গিয়েছে। তখনই ওই ক্রেতা বুঝতে পারেন, ডেলিভারি বয় কোনও প্রতারণা করেছে।

এর পরই পুলিশের দ্বারস্থ হন ওই ক্রেতা। ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪২০ ধারায় মামলা রুজু হয়। তদন্তে নেমে পুলিশ ওই ডেলিভারি বয়কে খুঁজে বের করে। এ বার তাকে জেরা করতেই সব সত্যি বেরিয়ে পড়ে। মনোজ জানিয়েছে, তার টাকার দরকার ছিল। তাই সে ফোনটি ডেলিভারি হয়েছে দেখিয়ে দিয়ে ক্রেতাকে না বিক্রি করে অন্যকে দিয়ে দেয়, বদলে টাকা নিয়ে নেয়।

Advertisement

আরও পড়ুন: দিনের আলোয় ক্যামেরার সামনে রিপোর্টারের ফোন ছিনিয়ে নিয়ে গেল দুষ্কৃতী

আরও পড়ুন: কপালে সিং, সাপের মতো জিভ, অভূতপূর্ব লুকের এই জার্মানকে চেনেন?

ফোনটি পরে জনৈক ধরমবীরের কাছ থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। মনোজকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.