Advertisement
২১ জুলাই ২০২৪
AIIMS

ন’বছরের বালকের ফুসফুসে আটকে সুচ, ভুবনেশ্বর এমসের চিকিৎসকদের তৎপরতায় প্রাণে বাঁচল সে

নাবালকের ফুসফুস থেকে সুচ বার করে আনলেন চিকিৎসকেরা। ভুবনেশ্বর এমসের চিকিৎসকদের তৎপরতায় প্রাণ বাঁচল তার। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, এমন ঘটনা এই প্রথম।

ফুসফুসে আটকে সুচ, কী ভাবে বাঁচল শিশুর প্রাণ?

ফুসফুসে আটকে সুচ, কী ভাবে বাঁচল শিশুর প্রাণ? ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ২১:০১
Share: Save:

নাবালকের ফুসফুস থেকে সুচ বার করলেন ভুবনেশ্বরের অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অফ মেডিক্যাল সায়েন্সেসের (এমস) চিকিৎসকেরা। হাসপাতালের কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে, কোনও রকম অস্ত্রোপচার ছাড়াই রোগীর শরীর থেকে সফল ভাবে ধারালো কোনও বস্তু বার করে আনার ঘটনা এর আগে ওড়িশার কোনও স্বাস্থ্যকেন্দ্রে হয়নি। এমন উদাহরণ ওড়িশায় এই প্রথম।

রোগীর বয়স মাত্র ৯ বছর। সে পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা। বালকের বাঁ দিকের ফুসফুসে নিম্ন লোব বঙ্কাস অংশে প্রায় ৪ সেন্টিমিটার লম্বা একটি সুচ আটকে ছিল বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা।

চিকিৎসক রশ্মি রঞ্জন দাস, কৃষ্ণ এম গুল্লা ও আরও দু’জন চিকিৎসকের একটি দল দক্ষতার সঙ্গে ব্রঙ্কোস্কোপিক পদ্ধতিতে কোনও রকম অস্ত্রোপচার ছাড়াই নাবালকের ফুসফুস থেকে সুচটি সফল ভাবে বার করেন। চিকিৎসক রশ্মি রঞ্জন দাস বলেন, ‘‘এই ব্রঙ্কোস্কোপিক পদ্ধতিতে সুচটি বার করা মোটেই সহজ ছিল না। এই কাজটি করার সময়ে কোনও ভুলত্রুটি হলে বালকটির প্রাণনাশেরও আশঙ্কা ছিল।’’

হাসপাতালের তরফে জানানো হয়েছে বালকটি এখন সঙ্কটমুক্ত। আপাতত তাকে ৪ দিন হাসপাতালেই চিকিৎসকদের কড়া নজরদারিতে রাখা হবে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

AIIMS
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE