ঝগড়া করে বাড়ি ছেড়ে চলে গিয়েছেন স্ত্রী। ঘরে তিন বছরের মেয়েকে একা পেয়ে মদ্যপ স্বামী তার উপরই নিজের সমস্ত বিদ্বেষ মেটাল! নিজেরই তিন বছরের ওই শিশুকন্যাকে ধর্ষণ করল ব্যক্তি। হাতপাতলের বিছানায় এখন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছে ওই শিশুটি। বুধবার গুরুগ্রামে মর্মান্তিক এই ঘটনাটি ঘটেছে। শুক্রবার তাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার রাতে মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরে ওই ব্যক্তি। স্বামীর রোজকার এই বদভ্যাস থেকে বিরক্ত ছিলেন স্ত্রী। সে রাতেও দু’জনের মধ্যে প্রচণ্ড অশান্তি হয়। রাতেই ১ বছরের সন্তানকে নিয়ে বাড়ি ছেড়ে এক আত্মীয়ের বাড়িতে চলে যান স্ত্রী। ঘরে রেখে গিয়েছিলেন তিন বছরের ওই শিশুকন্যাকে। মদ্যপ স্বামী যে এতটা ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারে, তা ঘূণাক্ষরেও কল্পনায় আনেননি তিনি।

পর দিন সকালে তিনি বাড়ি ফিরে দেখেন, বিছানায় উপর অচৈতন্য অবস্থায় পড়ে রয়েছে শিশুটি। বিছানা রক্তাক্ত। স্বামী পলাতক। তখনই স্বামীর বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে অভিযোগ জানান তিনি।

আরও পড়ুন: ১৭ বছরের কিশোরকে ‘বিয়ে,’ যৌন নির্যাতনের দায়ে গ্রেফতার তরুণী

আরও পড়ুন: ‘অপয়া’ বৃদ্ধা, মারধর করে কাটা হল চুল!

পুলিশ জানিয়েছে, শিশুটির অবস্থা সঙ্কটজনক। দিল্লির সফদর়়জং হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে তার।