'আসুন, মুখোমুখি বিতর্কে বসি', মোদীকে চ্যালেঞ্জ রাহুলের
প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম ও কংগ্রেসের মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালাকে পাশে বসিয়ে শনিবার দিল্লিতে এক সাংবাদিক সম্মেলনে রাহুল কট্টর জঙ্গি মাসুদ আজহার প্রশ্নেও কড়া সমালোচনা করতে পিছপা হননি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও তাঁর দল বিজেপির।
rahul gandhi

ছবি- পিটিআই

লোকসভা নির্বাচনের পঞ্চম দফার ভোটের ৪৮ ঘণ্টা আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে মুখোমুখি বিতর্কে বসার চ্যালেঞ্জ জানালেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গাঁধী। বললেন, "আসুন, মুখোমুখি বসি। আমাকে দশটা মিনিট সময় দিন। চাকরি, অর্থনীতি, কৃষি নিয়ে আপনাকে ক'টা প্রশ্ন করব। যে কোনও জায়গায় বসতে পারি সেই বিতর্কের জন্য। শুধু বসতে চাই না অনিল অম্বানীর বাড়িতে।"

প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম ও কংগ্রেসের মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালাকে পাশে বসিয়ে শনিবার দিল্লিতে এক সাংবাদিক সম্মেলনে রাহুল কট্টর জঙ্গি মাসুদ আজহার প্রশ্নেও কড়া সমালোচনা করতে পিছপা হননি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও তাঁর দল বিজেপির। বলেছেন, "মাসুদ আজহারকে পাকিস্তানের হাতে তুলে দিয়েছিল কারা? কংগ্রেস কি মাসুদকে ফিরিয়ে দিয়েছিল পাকিস্তানে? কোন সরকার সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে আপস করেছিল? কংগ্রেস মাসুদকে পাঠায়নি পাকিস্তানে? বাস্তবটা হল, বিজেপিই আপস করেছে সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে। সন্ত্রাসবাদের মোকাবিলা করতে হবে কঠোর ভাবে। আর সেটা আমরা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর চেয়ে ঢের ভাল ভাবে করতে পারি।"

কন্দহর কাণ্ডে পণবন্দি ভারতীয়দের ছাড়িয়ে আনতে ভারতের জেলে বন্দি মাসুদকে ১৯৯৯ সালে পাকিস্তানের হাতে তুলে দিয়েছিল প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ীর নেতৃত্বে তদানীন্তন এনডিএ সরকার।

আরও পড়ুন- পুরুলিয়ায় প্রচারে আসছেন রাহুল​

আরও পড়ুন- ‘আমি আপনাদের পরিবারের সদস্য়’, ভোট চেয়ে অমেঠীর ভোটারদের চিঠি রাহুলের​

ইউপিএ জমানার সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের ঘটনা নিয়ে যে কটাক্ষ করেছেন প্রধানমন্ত্রী মোদী, এ দিন তার সমালোচনাতেও সরব হন কংগ্রেস সভাপতি। বলেন, "ওই সব ঘটনাকে ভিডিয়োর কারসাজি বলে সেনা জওয়ানদের অপমান করেছেন প্রধানমন্ত্রী। সেনাবাহিনী মোদীজির ব্যক্তিগত সম্পত্তি নয়। আমরা সেনাবাহিনীকে নিয়ে রাজনীতি করি না।"

২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের ফল

আপনার মত