পরীক্ষার হলে নকল রুখতে স্কুল-কলেজ কর্তৃপক্ষ বিভিন্ন রকম ব্যবস্থা নেন। কিন্তু পরীক্ষা দেওয়ার সময় পরীক্ষার্থীদের মাথায় কাগজের বাক্স পরিয়ে দিতে দেখেছেন কখনও? কর্নাটকের হাভেরির ভগত প্রি ইউনিভার্সিটি কলেজে তেমনটাই করা হয়েছে।

গত বুধবার ওই কলেজে মিড টার্মের পরীক্ষা ছিল। পরীক্ষার হলে প্রশ্নপত্র ও উত্তরপত্রের পাশাপাশি ছাত্রছাত্রীদের দেওয়া হয় পিসবোর্ডের বাক্স। কর্তৃপক্ষের নির্দেশে পরীক্ষা চলাকালীন সেই বাক্স তাঁদের মাথায় পরে থাকতে হবে। সেই বাক্সের এক দিক শুধু খোলা। সেখান দিয়ে নিজেদের প্রশ্ন-উত্তরপত্র দেখতে পারবেন পরীক্ষার্থীরা। তবে বাক্সের তিন দিক বন্ধ থাকায় আশপাশের কোনও কিছুই দেখা সম্ভব ছিল না। এই পদ্ধতি ব্যবহার করেই পরীক্ষার নকল রুখতে চেয়েছিলেন ওই কলেজ কর্তৃপক্ষ।

যদিও এই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। বিষয়টি ছড়িয়ে পড়তেই ওই কলেজে পরিদর্শনে আসেন প্রি-ইউনিভার্সিটি এডুকেশনের ডেপুটি ডিরেক্টর এসসি পিরজাদে। তিনি আসতেই বন্ধ করা হয় কলেজ কর্তৃপক্ষের মস্তিষ্কপ্রসূত টুকলি রোখার এই পদ্ধতি। বিষয়টি নিয়ে একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেছেন, ‘‘কলেজে গিয়ে দেখি, পরীক্ষার্থীদের মাথায় রয়েছে বাক্স!’’ 

এ ভাবে বাক্স পরিয়ে পরীক্ষা নেওয়ার জন্য শোকজ নোটিসও জারি করা হয়েছে। যদিও কলেজ কর্তৃপক্ষ বিষয়টি নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া দেননি। 

আরও পড়ুন: রোগিণীকে অজ্ঞান করে ধর্ষণ, নিজের চালেই চার বছর পর গ্রেফতার চিকিৎসক

আরও পড়ুন: মেয়েদের স্কুলে শিক্ষক নয়, পড়াবেন শিক্ষিকারাই, নয়া ‘দাওয়াই’ রাজস্থানের মন্ত্রীর!