টেস্ট শুরু হওয়ার আগে প্রথম একাদশে তাঁর জায়গা হবে কি না তা নিয়েই চর্চা ছিল। হালফিলে তাঁর ফর্ম-ও সেই চর্চার আগুনে ঘি দিয়েছিল। কিন্তু সেই রাহানেই প্রথম টেস্ট-এ ক্যারিবিয়ান পেস সামলে বাঁচিয়ে রাখল ভারতকে। তাঁর ৮১-র সৌজন্যে ভারত দিনের শেষে ২০৩/৬।

বৃহস্পতিবার অ্যান্টিগায় ২৫ রানে তিন উইকেট পড়ার পরে ক্রিজে আসেন ভারতের সহ-অধিনায়ক। চা-বিরতি পর্যন্ত তিনি অপরাজিত ছিলেন ৫০ রানে। তাঁর সঙ্গেই ক্রিজে ছিলেন হনুমা বিহারী। বৃহস্পতিবার টস হওয়ার আগেই অ্যান্টিগার বাইশ গজ নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠে পড়েছিল। কেউ কেউ বলছিলেন, এখানে ব্যাট করাটা খুব সোজা হবে না। তার উপরে টসের আধ ঘণ্টা আগে বৃষ্টি নামায় উইকেট কিছুটা স্যাঁতসেতেও হয়ে গিয়েছিল। নির্দিষ্ট সময়ের মিনিট পনেরো পরে খেলা শুরু হয়।

এই অবস্থায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের অধিনায়ক জেসন হোল্ডার টস জিতে ফিল্ডিং নিয়েছিলেন। এবং ক্যারিবিয়ান পেস আক্রমণ প্রথম ঘণ্টায় বুঝিয়ে দেয়, তাদের অধিনায়ক ভুল সিদ্ধান্ত নেননি। মাত্র আট ওভারের মধ্যেই বিরাট কোহালি-সহ ফিরে যান ভারতের প্রথম তিন  ব্যাটসম্যান। ওই সময় স্কোর ছিল তিন উইকেটে ২৫। সেখান থেকে লড়াই চালান কে এল রাহুল এবং রাহানে। রাহুল যদিও ৪৪ রান করে ফিরে যান। লেগস্টাম্পের বাইরের বলে গ্লান্স করে এক রান কুড়িয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেন রাহুল। কিন্তু রস্টন চেজের অফস্পিন একটু বেশি ঘোরায় তাঁর ব্যাট ছুঁয়ে উইকেটকিপার শেই হোপের হাতে চলে যায়।

আরও পড়ুন: বাঙ্গার-বিদায়, নতুন ব্যাটিং কোচ রাঠৌরই

আরও পড়ুন: টেস্ট বিশ্বকাপে পয়েন্ট প্রথা নিয়ে সওয়াল বেঙ্গসরকরদের

ম্যাচের  ৬৯তম ওভারে যখন বৃষ্টি বাধ সাধে, তখন ভারত ৬ উইকেটে ২০৩। দিনের শেষে ঋষভ পন্থ ব্যাট করছেন ২০ রানে। তাঁর সঙ্গে রয়েছেন রবীন্দ্র জাদেজা।