Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

তুলনায় কম জরিমানা হল ইস্টবেঙ্গলের

ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের বিনিয়োগকারী সংস্থা সুপার কাপ বয়কটের রাস্তায় হেঁটেছিল। কিন্তু লাল-হলুদ শিবিরের কর্মসমিতি সভাপতি একাদশ নাম দিয়ে সুপার কাপে

নিজস্ব সংবাদদাতা
১৭ মে ২০১৯ ০৪:৪১
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

সুপার কাপ বয়কট করার শাস্তি হিসেবে বিদ্রোহী ক্লাব জোটকে আর্থিক জরিমানা করল সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন। তবে এই জোটে থাকা কলকাতার দুই ক্লাবের ক্ষেত্রে দু’রকম সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফেডারেশনের শৃঙ্খলারক্ষা কমিটি।

ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের বিনিয়োগকারী সংস্থা সুপার কাপ বয়কটের রাস্তায় হেঁটেছিল। কিন্তু লাল-হলুদ শিবিরের কর্মসমিতি সভাপতি একাদশ নাম দিয়ে সুপার কাপে দল পাঠাতে চেয়েছিল। এই উদ্যোগকে ধন্যবাদ জানিয়ে ইস্টবেঙ্গলের জরিমানা করা হয়েছে ৫ লক্ষ টাকা। মোহনবাগান যে হেতু প্রতিযোগিতায় ফুটবলারদের তালিকা নথিভুক্ত করেনি, তাই তাদের শাস্তি কী হবে, তা জানতে বিষয়টি ফেডারেশনের আরবিট্রেশন বা সালিশি সভায় পাঠানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার শৃঙ্খলারক্ষা কমিটির প্রধান ঊষানাথ বন্দ্যোপাধ্যায় বললেন, ‘‘পাঁচটি ক্লাবকে ১০ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। ইস্টবেঙ্গলের জরিমানা পাঁচ লক্ষ করার কারণ, ওদের বিনিয়োগকারী সংস্থা সুপার কাপ বয়কট করলেও ক্লাবের কর্মসমিতির বৈঠকে সভাপতি একাদশ নামে খেলার উদ্যোগ নেওয়া হয়। যে বৈঠকের বিস্তারিত তথ্য ইস্টবেঙ্গল আমাদের দিয়েছে।’’ সঙ্গে যোগ করেন, ‘‘মোহনবাগান সুপার কাপে কোনও ফুটবলারের নাম নথিবদ্ধ করেনি। বিষয়টি আরবিট্রেশন ধারার অর্ন্তভুক্ত। তাই সালিশি সভায় পাঠানো হয়েছে।’’

Advertisement

গত ২৭ এবং ২৮ এপ্রিল দিল্লির ফুটবল হাউসে সুপার কাপ বয়কট করা সাত ক্লাব জোটের বক্তব্য শুনেছিলেন ঊষানাথ বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের শৃঙ্খলারক্ষা কমিটি। এই কমিটির বাকি সদস্যরা হলেন, হর্ষ ভোরা, আদিত্য রেড্ডি, প্রতীক চাড্ডা ও মাধবমিলন ঘোষ। সভায় ইস্টবেঙ্গলের তরফে সব ক্লাবের শাস্তি মকুবের আবেদন জানানো হলেও, তা মানা হয়নি। জানা গিয়েছে, জরিমানার টাকার একটা অংশ নবীন প্রতিভার উৎকর্ষ বৃদ্ধিতে ব্যয় হবে।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement