Advertisement
২১ জুলাই ২০২৪

সলমনকে নিয়ে বলিউড বনাম ক্রীড়ামহল

বলিউড তারকা সলমন খানের রিও অলিম্পিক্সের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে নিয়োগ নিয়ে বিতর্ক তুঙ্গে। এক দিকে দেশের ক্রীড়ামহলের একাংশ খোলাখুলি সলমনের খেলাধুলোয় ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। যে তালিকায় আছেন রাজনীতিবিদরাও।

সেলিম-সলমন। ছেলের পাশে বাবা। -ফাইল চিত্র

সেলিম-সলমন। ছেলের পাশে বাবা। -ফাইল চিত্র

নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৬ এপ্রিল ২০১৬ ০৪:৩৮
Share: Save:

বলিউড তারকা সলমন খানের রিও অলিম্পিক্সের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে নিয়োগ নিয়ে বিতর্ক তুঙ্গে। এক দিকে দেশের ক্রীড়ামহলের একাংশ খোলাখুলি সলমনের খেলাধুলোয় ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। যে তালিকায় আছেন রাজনীতিবিদরাও। অন্য দিকে এ ব্যাপারে সলমনের পাশে দাঁড়াচ্ছে বলিউড তারকারা। সেখানে আবার প্রশ্ন উঠছে এক জন বলিউড তারকা যদি তাঁর জনপ্রিয়তা কাজে লাগিয়ে রিও অলিম্পিক্সের ভারতীয় দলকে নিয়ে আগ্রহ বাড়ানোর চেষ্টা করেন তাতে ক্ষতি কী?

সবচেয়ে বেশি হইচই হচ্ছে অলিম্পিক্স পদকজয়ী কুস্তিগির যোগেশ্বর দত্তের মন্তব্য নিয়ে। তিনি বলেছেন, ‘‘দেশে অ্যাথলিট কম নেই। পিটি উষা আছেন, সচিন তেন্ডুলকর আছেন এমন অনেক খেলোয়াড়ই তো আছেন যাঁরা আমাদের গর্বিত করেছেন। তবে আমার মনে হয় সাধারণ মানুষ ফিল্মস্টারদের পছন্দ করেন তাই হয়তো অলিম্পিক্সের খেলাগুলোকে জনপ্রিয় করতে এই সিদ্ধান্ত।’’ যোগেশ্বরকে সমর্থন করেছেন কিংবদন্তি অ্যাথলিট মিলখা সিংহও। যাঁর খেলোয়াড়ী জীবন নিয়ে বলিউডে জনপ্রিয় সিনেমাও হয়ে গিয়েছে ‘ভাগ মিলখা ভাগ।’ তিনি বলেছেন, ‘‘বলিউড থেকে কাউকে না বেছে পিটি উঠার মতো কোনও ক্রীড়াব্যক্তিত্বকে এই দায়িত্বে ভাবা উচিত ছিল।’’ মিলখা আরও বলেছেন, ‘‘আমি সলমনের বিরোধী নয়। কিন্তু আইওএ-র এই সিদ্ধান্ত ভুল। সরকারের এ ব্যাপারে হস্তক্ষেপ করা উচিত। এই প্রথম দেখলাম কোনও বলিউড নায়ককে অলিম্পিক্সের শুভেচ্ছাদূত করা হল। আমার প্রশ্ন বলিউড কী কখনও কোনও ক্রীড়াব্যক্তিত্বকে ওদের মেগা ইভেন্টে দূত করেছে?’’

সলমানের বাবা সলিম খান ছেলের খেলাধুলোর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে যাঁরা প্রশ্ন তুলেছেন তাঁদের উদ্দেশে বলেছেন, ‘‘সলমন হয়তো প্রতিযোগিতায় নামেনি তবে ও কিন্তু এ লেভেল সাঁতারু, সাইক্লিস্ট আর ভারোত্তোলক.. খেলোয়াড়রা কিন্তু আমাদের মতো ক্রীড়াপ্রেমীদের জন্যই পারফর্ম করতে পারে।’’ আবার মিলখা সিংহের মন্তব্য নিয়ে সলিম খানের জবাব, ‘‘মিলখাজি এটা শুধু বলিউডের ব্যাপার নয়। এটা ভারতীয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির ব্যাপার। সেটাও কিন্তু বিশ্বে বড় জায়গায় আছে। এই একই ইন্ডাস্ট্রি কিন্তু আপনাকে বিস্মরণের অতলে তলিয়ে যেতে দেয়নি।’’

বিতর্কে হাওয়া উঠেছে হরিয়ানার স্বাস্থ্য ও ক্রীড়ামন্ত্রী অনিল ভিজের টুইটেও। যিনি যোগেশ্বর দত্তকে এই ভূমিকায় দেখার সওয়াল করেন। ‘‘যোগেশ্বর দত্ত ভুলে যাও সলমন খানকে। তুমি আসল হিরো। সলমন তো ফিল্মি হিরো। আসল হিরোরাই দেশের জন্য পদক জেতে, ফিল্মি হিরোরা নয়।’’ সঙ্গে তিনি বলেছেন আইওএর উচিত ছিল সলমনের জায়গায় বিখ্যাত কোনও ভারতীয় খেলায়াড়কে নিয়োগ করা। যোগেশ্বর কুস্তিতে দেশকে প্রচুর সম্মান এনে দিয়েছেন।

তবে এই বিতর্কে ভারতীয় খেলাধুলোর জগৎ থেকে সলমন কিন্তু পাশে পাচ্ছেন সুনীল গাওস্করকে। কিংবদন্তি ভারতীয় ব্যাটসম্যান বলেছেন, ‘‘সলমন কেন নয়?’’ বলিউড তারকা হেমা মালিনি আবার বলেছেন, ‘‘মানুষ সলমনকে এত ভালবাসে। ও যদি ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হয় তা হলে সমস্যা কোথায় বুঝতে পারছি না।’’ সলমনের বিরুদ্ধে মুম্বইয়ে গাড়িচাপা দেওয়ার যে অভিযোগ উঠেছিল। তাকেও নিশানা করছেন কেউ কেউ। তবে হেমা বলছেন, ‘‘ওর জীবনের এটা একটা পর্ব...আমার মনে হয় সলমনের জনপ্রিয়তাকে ভাল কাজে লাগানো উচিত।’’ এ সবের পাশাপাশি কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোওয়াল আবার বলেছেন, ‘‘আইওএ স্বশাসিত সংস্থা। ক্রীড়ামন্ত্রক এ ব্যপারে হস্তক্ষেপ করতে পারে না।’’ তবে তিনি এও বলেছেন, সলমনের শুভেচ্ছাদূত নিয়োগ নিয়ে বর্তমান আর খেলোয়াড়দের মতামত আইওএ-কে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Bollywood Sports world Salman Khan rio olympics
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE