Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৯ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Rahul Dravid: দ্রাবিড়-পাঠের দিকে তাকিয় ভারতীয় দল

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ০৫ নভেম্বর ২০২১ ০৬:৪৬
পরীক্ষা: আসন্ন সিরিজ়ে কোচ হিসেবে অভিষেক হবে দ্রাবিড়ের।

পরীক্ষা: আসন্ন সিরিজ়ে কোচ হিসেবে অভিষেক হবে দ্রাবিড়ের।

ভারতীয় দলের নতুন হেড কোচ রাহুল দ্রাবিড়ের অধীনে উন্নতি করার দিকে তাকিয়ে রয়েছেন রোহিত শর্মা, অশ্বিনরা। বোর্ড ঘোষণা করে দিয়েছে, রবি শাস্ত্রীর জায়গায় দায়িত্ব নিচ্ছেন দ্রাবিড়-ই। তিনি কাজ শুরু করবেন ঘরের মাঠে নিউজ়িল্যান্ড সিরিজ থেকে।

আফগানিস্তান ম্যাচের পরে সাংবাদিক সম্মেলনে রোহিতকে নতুন কোচকে নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘‘রাহুল দ্রাবিড় ভারতীয় ক্রিকেটের কিংবদন্তি। নতুন ভূমিকায় ভারতীয় দলে ফিরে আসার জন্য ওঁকে অনেক অভিনন্দন। ওঁর সঙ্গে কাজ করার জন্য উন্মুখ হয়ে রয়েছি। ওঁকে কোচ হিসেবে পাব ভেবে সত্যিই ভাল লাগছে।’’

দ্রাবিড়ের কোচ হয়ে আসা নিয়ে উচ্ছ্বসিত তারকা স্পিনার অশ্বিনও। যিনি চার বছর পরে ভারতের হয়ে সাদা বলের ক্রিকেটে ফিরেই দুর্দান্ত বোলিং করেছেন। অশ্বিন মনে করছেন, দ্রাবিড়ের কোচ হয়ে আসার অনেক ভাল দিক রয়েছে। কিন্তু তাঁরা সব চেয়ে উপকৃত হবেন কিংবদন্তির গভীর ক্রিকেট জ্ঞান থেকে। ‘‘আমার মনে হয় রাহুল ভাইয়ের ক্রিকেট জ্ঞানের গভীরতা খুব বেশি। উনি যা করেন, সদিচ্ছা নিয়ে করেন। এবং, উনি এমন এক জন যিনি কঠিন রাস্তা পেরিয়েছেন।’’

Advertisement

শুধু ক্রিকেটার হিসেবে দুর্গম রাস্তা পেরিয়ে আসা নয়, কোচ দ্রাবিড়ও ধাপে ধাপে এগিয়েছেন। রাতারাতি নিজের নাম দেখিয়ে ভারতীয় দলে ঢুকে পড়েননি। জাতীয় অ্যাকাডেমিতে যুক্ত থেকেছেন, যুব দলের সঙ্গে কাজ করেছেন। অনূর্ধ্ব উনিশ বিশ্বকাপ জিতেছেন পৃথ্বী শ, শুভমন গিলদের নিয়ে। তার পরে আসছেন ভারতীয় সিনিয়র দলের হেড কোচ হিসেবে। অশ্বিনের মুখে সে কথাও শোনা গেল, ‘‘জাতীয় অ্যাকাডেমিতে কাজ করেছেন উনি। ভারতীয় এ দলের সঙ্গে থেকেছেন। এই ড্রেসিংরুমে উপস্থিত কারও কারও সঙ্গে উনি খেলেওছেন।’’ অশ্বিন যোগ করেছেন, ‘‘তরুণ ছেলেদের উনি খুব ভাল করে জানেন। আমি রাহুল ভাইয়ের অধীনে ভারতীয় ক্রিকেটে অবদান রাখার জন্য মুখিয়ে রয়েছি।’’

ইংল্যান্ডের প্রাক্তন অধিনায়ক মাইকেল ভন পর্যন্ত বলেছেন, ‘‘দুর্দান্ত পছন্দ। রাহুল দ্রাবিড়ের চেয়ে যোগ্য নাম আর কিছু হতে পারে না। ভারতীয় ক্রিকেটকে দারুণ ভাবে এগিয়ে নিয়ে যাবে রাহুল।’’ দেশের মাটিতে ২০১১ বিশ্বকাপ জেতার পর থেকে আর কোনও বিশ্বমানের প্রতিযোগিতায় জেতেনি ভারত। ২০১৭ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনালে হার, ২০১৯ বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে হার, টেস্ট বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে হার। চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও প্রথম দুই ম্যাচে হেরে বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে দল। তাই দ্রাবিড়ের কাছ থেকে সব চেয়ে বেশি প্রত্যাশা থাকবে বিশ্বমঞ্চে ট্রফি জেতার। সে কথা বুঝে দ্রাবিড় নিজেও বলেছেন, ‘‘আগামী দু’বছরে বিশ্বমানের সব প্রতিযোগিতা রয়েছে। সে সব প্রতিযোগিতায় ভাল করা আমাদের লক্ষ্য।’’ সামনের বছর অস্ট্রেলিয়ায় ফের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ২০২৩-এ ভারতে পঞ্চাশ ওভারের বিশ্বকাপ। কোচ দ্রাবিড়ের পাখির চোখ হবে এই দু’টি বিশ্বকাপ।

আরও পড়ুন

Advertisement