Advertisement
২৭ নভেম্বর ২০২২

জোয়াকিমকে রোখাই চ্যালেঞ্জ কোচ খালিদের

জিন মাইকেল জোয়াকিম নামে ফ্রান্সের লিগ ওয়ানে খেলে আসা এমন একজন ফুটবলার আছেন চেন্নাই টিমে, পাঁচ ম্যাচে চার গোল হয়ে গিয়েছে যাঁর।

ভরসা: ইস্টবেঙ্গল তাকিয়ে প্লাজার দিকে। ফাইল চিত্র

ভরসা: ইস্টবেঙ্গল তাকিয়ে প্লাজার দিকে। ফাইল চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
শেষ আপডেট: ২২ ডিসেম্বর ২০১৭ ০৪:৪৩
Share: Save:

কোয়েম্বাত্তুরে জহওরলাল নেহরু স্টেডিয়ামে প্রথম আই লিগের ম্যাচ হচ্ছে। তাই বড় বড় ঘাস কাটার কাজ চলেছে বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত। সে জন্যই খালিদ জামিলের ইস্টবেঙ্গলকে কৃত্রিম ঘাসের মাঠে অনুশীলন করতে হল ম্যাচের আগের দিন অর্থাৎ বৃহস্পতিবার।

Advertisement

প্রতিপক্ষ চেন্নাই সিটি এফ সি শেষ ম্যাচে চমকপ্রদ জয় পেয়েছে চার্চিল ব্রাদার্সের বিরুদ্ধে। কলকাতা ছাড়ার আগে উইলিস প্লাজা, অর্ণব মণ্ডলরা সেটা দেখে চেন্নাইয়ের বিমানে উঠেছেন।

জিন মাইকেল জোয়াকিম নামে ফ্রান্সের লিগ ওয়ানে খেলে আসা এমন একজন ফুটবলার আছেন চেন্নাই টিমে, পাঁচ ম্যাচে চার গোল হয়ে গিয়েছে যাঁর। আপাতত টুনার্মেন্টের সর্বোচ্চ গোলদাতা এই স্ট্রাইকার গোলের সামনে নাকি ভয়ঙ্কর।

এ রকম আবহে আজ শুক্রবার আই লিগে প্রথম বাইরের ম্যাচ খেলতে নামছে ইস্টবেঙ্গল। এবং সবথেকে বড় ব্যাপার, চেন্নাইকে হারাতে পারলে মোহনবাগানকে টপকে যাবেন মহম্মদ রফিক, লালরাম চুলোভা। সেই ম্যাচের আগে খালিদ জামিলের শরীরী ভাষার কোনও পরিবর্তন নেই। বদল আসেনি ভাবনাতেও। খেলতে নামার চব্বিশ ঘণ্টা আগে বরাবরের মতোই তিনি বলে দিয়েছেন, ‘‘আগে কোন ম্যাচ জিতেছি বা হেরেছি, সেটা বড় কথা নয়। শুক্রবার আর একটা নতুন ম্যাচ। এর বাইরে অন্য কিছু ভাবছি না। আগের বার এখানে এসে চেন্নাইয়ের কাছে ইস্টবেঙ্গল হেরেছিল, সেটা যেমন মনে রাখতে চাই না—তেমনই শেষ ম্যাচে ঘরের মাঠে আমরা চার্চিলকে হারিয়েছি, সেটাও মনে রাখছি না।’’

Advertisement

যে টিমের বিরুদ্ধেই ম্যাচ হোক তাদের সম্পর্কে দরাজ হন খালিদ। এ দিনও হয়েছেন। বলে দিলেন, ‘‘চেন্নাই ভাল দল। নিজেদের মাঠে খেলবে ওরা, আমরাই চাপে থাকব।’’ এ দিন প্রায় এক ঘণ্টা অনুশীলন করে ইস্টবেঙ্গল। রক্ষণ সংগঠনের জন্য এদুয়ার্দো ফেরিরা, অর্ণবদের নিয়ে আলাদা অনুশীলন হয়। কর্নার, ফ্রি- কিকে গোল করার উপর জোর দিয়েছিলেন খালিদ। ৪-১-৪-১ ফর্মেশনে সবাইকে ঘুরিয়ে ফিরিয়ে খেলান লাল-হলুদ কোচ।

স্ট্র্যাটেজির পাশাপাশি ইস্টবেঙ্গল কোচ নানা তুকতাক করেন। সেটা তিনি বজায় রেখেছেন বাইরে খেলতে গিয়েও। সে জন্যই সাংবাদিক সম্মেলনে সঙ্গে করে আনেননি অধিনায়ক অর্ণবকে। এনেছিলেন প্লাজাকে। তাঁর গলায় অবশ্য টিম গেমের কথা। ‘‘আমি গোল করলাম কি করলাম না, সেটা বড় কথা নয়। তিন পয়েন্ট পাওয়াটাই আসল কথা।’’ প্লাজার পাশে অবশ্য দাঁড়িয়েছেন আল আমনাও। ইস্টবেঙ্গল টিমের হৃৎপিণ্ড বলে দিয়েছেন, ‘‘প্লাজা, কাতসুমি বা আমনা সবাই ভাল ফুটবলার। খেতাব জিততে হলে জেতাটা অভ্যাস করতে হবে।’’

চেন্নাই পাঁচ ম্যাচে মাত্র একটাতেই জিতেছে সুন্দররাজনের টিম। দলে কোনও চেনা বিদেশি বা স্বদেশী ফুটবলার নেই। আই লিগের দশ দলের মধ্যে চেন্নাই-ই একমাত্র দল যারা বিদেশি গোলকিপার খেলাচ্ছে। খেলছেন সার্বিয়ার উরো পোলানেক। ৪-৪-২ ফর্মেশনে খেলছে চেন্নাই। জোয়াকিমদের কোচ এ দিন বলে দিলেন, ‘‘আমাদের চেয়ে ইস্টবেঙ্গল দু’দিন বেশি বিশ্রাম পেয়েছে। ক্লান্তি ছাড়া আর কোনও সমস্যা নেই।’’

খালিদ এ দিন দুপুরে এবং রাতে প্লাজাদের ভিডিও দেখিয়েছেন চেন্নাইয়ের। টিম সূত্রের খবর, তাঁর চিন্তা বাড়িয়েছে জোয়াকিমের গোলের সামনে ছটফটানি। লাল-হলুদ রক্ষণ কী ভাবে চেন্নাই-স্ট্রাইকারকে সামলায় সেটাই দেখার।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.