Advertisement
০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Brazil Football

বিশ্বকাপে ব্রাজিলের ধাক্কা! চোট পেয়ে প্রতিযোগিতা থেকে ছিটকে গেলেন দুই ফুটবলার

ব্রাজিলের এক সংবাদমাধ্যমের তরফে এই দাবি করা হয়েছে। দু’জনেই ক্যামেরুন ম্যাচে খেলতে গিয়ে প্রায় একই রকমের চোট পান। শনিবার জানা গিয়েছে, বাকি বিশ্বকাপে তাঁদের পাওয়ার সম্ভাবনা কম।

ক্যামেরুনের কাছে হারের পর জেসুসকে সান্ত্বনা নেমারের।

ক্যামেরুনের কাছে হারের পর জেসুসকে সান্ত্বনা নেমারের। ছবি: রয়টার্স

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ০৩ ডিসেম্বর ২০২২ ১৭:৪৭
Share: Save:

দক্ষিণ কোরিয়ার বিরুদ্ধে প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে নামার আগেই ধাক্কা খেল ব্রাজিল। বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেলেন গ্যাব্রিয়েল জেসুস। ছিটকে যাওয়ার সম্ভাবনা আলেক্স টেলেসেরও। ব্রাজিলের এক সংবাদমাধ্যমের তরফে এই দাবি করা হয়েছে। দু’জনেই ক্যামেরুন ম্যাচে খেলতে গিয়ে প্রায় একই রকমের চোট পান। শনিবার জানা গিয়েছে, বাকি বিশ্বকাপে তাঁদের পাওয়ার সম্ভাবনা কম। ব্রাজিলের তরফে আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা করে দেওয়া হয়েছে শনিবার বিকালেই।

Advertisement

শুক্রবার ক্যামেরুন ম্যাচের পর ব্রাজিল দলের ডাক্তার রদ্রিগো লাসমার বলেন, “টেলেস বলছিল ওর হাঁটুতে যন্ত্রণা করছে। সাজঘরে ওর চোট পরীক্ষা করা হয়েছে। শনিবার ওর এমআরআই করা হবে। তার পরেই চোটের পরিস্থিতি বুঝতে পারব। জেসুসের ডান হাঁটুতে ব্যথা করছে। ওকেও পরীক্ষা করা হয়েছে এবং এমআরআই করা হবে।” শনিবার এমআরআই করার পরেই জানা যায় দু’জনের চোটের অবস্থা খুব একটা ভাল নয়। প্রসঙ্গত, জেসুস ফরোয়ার্ডে খেলেন। টেলেস রক্ষণ ভাগের খেলোয়াড়। কোরিয়ার বিরুদ্ধে ব্রাজিল প্রথম দল খেলালে দু’জনেরই প্রথম একাদশে থাকার সম্ভাবনা কম ছিল।

ব্রাজিল দলে চিন্তা রয়েছে নেমার এবং দানিলোকে নিয়েও। সেই প্রসঙ্গে রদ্রিগো বলেছেন, “নেমার এবং আলেক্স সান্দ্রোকে নিয়ে আমাদের হাতে সময় রয়েছে। সম্ভাবনাও রয়েছে ওদের খেলার। এখনই আমরা চূড়ান্ত কিছু বলতে পারছি না। কারণ এখনও নেমার বল নিয়ে অনুশীলন শুরু করেনি। আশা করি দ্রুত অনুশীলন শুরু করবে। চোট সারিয়ে দলের সঙ্গে কী ভাবে মানিয়ে নিতে পারে সেটার উপর অনেক কিছু নির্ভর করবে। তার পরেই আমরা সিদ্ধান্ত নেব ওদের খেলানো হবে কি না।”

ব্রাজিলের কোচ তিতে বলেছেন, “ফুটবলারদের প্রচণ্ড পরিশ্রম করতে হচ্ছে। কিন্তু সময় খুবই কম। ম্যাচে তার প্রভাব পড়ছে। সেরে ওঠার সময়ই পাওয়া যাচ্ছে না। জানি না এর থেকে বেশি আর কী বলব। শারীরিক ভাবে বিশ্বকাপ খুবই কঠিন প্রতিযোগিতা।”

Advertisement

রদ্রিগো আরও বলেন, “দানিলোর উন্নতি খুবই ভাল হচ্ছে। বলের সঙ্গে শুক্রবার ও ভালই অনুশীলন করেছে। যে ভাবে খেলাতে চাইছি সে ভাবে মানিয়ে নেওয়ার আপ্রাণ চেষ্টা করছে। আশা করি শনিবার ও ভাল ভাবেই অনুশীলন করতে পারবে। দেখা যাক সেখানে সব ঠিকঠাক থাকে কিনা। আশা করি ওকে অন্তত পরের ম্যাচে খেলতে দেখা যাবে।”

নেমারকে শুক্রবার দলের সঙ্গে স্টেডিয়ামে আসতে দেখা যায়। গ্যালারিতে বসে সতীর্থদের তাতালেন তিনি। সুইৎজারল্যান্ড ম্যাচে জ্বরের কারণে হোটেলে কাটালেও ক্যামেরুন ম্যাচে তাঁকে স্টেডিয়ামে হাজির থাকতে দেখে উৎফুল্ল সমর্থকরা। নেমার ইতিমধ্যেই জ্বর সারিয়ে জিমে অনুশীলন শুরু করে দিয়েছেন।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.