×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৭ মে ২০২১ ই-পেপার

গড়াপেটায় হঠাৎ ভারতকে টেনে আনলেন আকিব

নিজস্ব প্রতিবেদন
০৮ মে ২০২০ ০৫:৩৪
আকিব জাভেদ। ফাইল চিত্র।

আকিব জাভেদ। ফাইল চিত্র।

আচমকাই পাকিস্তানের প্রাক্তন পেসার আকিব জাভেদ অভিযোগ তুললেন, ম্যাচ গড়াপেটায় যুক্ত মাফিয়ার সঙ্গে ভারতের যোগ রয়েছে। পাকিস্তানের একটি টিভি চ্যানেলে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে তিনি আরও দাবি করেছেন, আইপিএলেও এর আগে গড়াপেটা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল। কিন্তু কারও কিছু করার সাহস নেই।

‘‘অতীতে আইপিএলেও গড়াপেটা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল। ম্যাচ গড়াপেটায় জড়িত মাফিয়ার সঙ্গে ভারতের যোগ রয়েছে,’’ পাক টিভি চ্যানেলে বলেন আকিব। তিনি আরও বলেন, ‘‘এক বার গড়াপেটায় জড়িয়ে পড়লে আর বেরিয়ে আসার কোনও পথ থাকে না। এখনও পর্যন্ত সেই মাফিয়ার বিরুদ্ধে কারও কিছু করার সাহস হয়নি।’’ সম্প্রতি নতুন করে পাকিস্তানে গড়াপেটা নিয়ে বিতর্কের ঝড় উঠেছে। মহম্মদ আসিফের মতো কলঙ্কিত পাক ক্রিকেটার প্রশ্ন তুলেছেন, তাঁর আগে এবং পরেও গড়াপেটা হয়েছে। তা হলে তিনি একা কেন শাস্তি ভোগ করছেন?

এ সবের মধ্যে ভারতকে টেনে এনেছেন আকিব। ৪৭ বছর বয়সি প্রাক্তন পাক পেসারের দাবি, ম্যাচ গড়াপেটা নিয়ে প্রশ্ন তোলার জন্যই তাঁকে শাস্তি পেতে হয়েছিল। চরম শাস্তি পাওয়ার হুমকিও নাকি তিনি পেয়েছিলেন। ‘‘আমার খেলোয়াড় জীবন সময়ের আগেই শেষ হয়ে গিয়েছিল, কারণ আমি ম্যাচ গড়াপেটার বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলেছিলাম। আমাকে হুমকি দেওয়া হয়েছিল, টুকরো টুকরো করে দেওয়া হবে,’’ বলেন আকিব। আরও দাবি, তিনি জাতীয় দলের কোচ হতে পারেননি খোলাখুলি কথা বলতে পছন্দ করেন বলে।

Advertisement

আরও পড়ুন: ‘নিশ্চিত ভাবে বিরাটদের এখনকার দলকে আমরা হারিয়ে দিতাম’

আউট হয়ে ফেরার সময় পার্থিবকে ঘুসি মারার হুমকি দেন হেডেন!

আকিব বলেছেন, ‘‘গড়াপেটার বিরুদ্ধে যদি কেউ আওয়াজ তোলে তা হলে তাঁর খেলোয়াড়জীবন একটি নির্দিষ্ট সময় পর্যন্তই চলতে পারে। এই কারণেই আমি পাকিস্তানের প্রধান কোচ কখনও হতে পারিনি।’’

ডান হাতি মিডিয়াম পেসার আকিব পাকিস্তানের জার্সিতে ২২টি টেস্ট খেলেছেন। ওয়ান ডে খেলেছেন ১৬৩টি। যার মধ্যে টেস্টে তিনি পেয়েছেন ৫৪টি এবং ওয়ান ডে-তে ১৮২টি উইকেট।

(অভূতপূর্ব পরিস্থিতি। স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিয়ো আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, feedback@abpdigital.in ঠিকানায়। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।)

Advertisement