Advertisement
২৭ জানুয়ারি ২০২৩
রোনাল্ডিনহোর চোখে

‘মারাদোনাকে টপকাতে পারবে না মেসি’

তিনি ব্রাজিলকে বিশ্বকাপ জিতিয়েছেন। বার্সেলোনার হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতেছেন। দু’বার ব্যালন ডি’অরও পেয়েছেন। কিন্তু আজও তাঁর একমাত্র আক্ষেপ লিওনেল মেসির সঙ্গে বেশিদিন খেলতে পারেননি।

বুধবার বার্সেলোনার প্র্যাকটিসে পিকে, নেইমারের সঙ্গে মেসি। এলএম টেন ফিরছেন সম্ভবত শনিবার।

বুধবার বার্সেলোনার প্র্যাকটিসে পিকে, নেইমারের সঙ্গে মেসি। এলএম টেন ফিরছেন সম্ভবত শনিবার।

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ১৩ অক্টোবর ২০১৬ ০৪:০৬
Share: Save:

তিনি ব্রাজিলকে বিশ্বকাপ জিতিয়েছেন। বার্সেলোনার হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতেছেন। দু’বার ব্যালন ডি’অরও পেয়েছেন। কিন্তু আজও তাঁর একমাত্র আক্ষেপ লিওনেল মেসির সঙ্গে বেশিদিন খেলতে পারেননি। মেসি যখন ড্রেসিংরুমে নতুন একটা মুখ, বার্সেলোনায় তাঁর নাম পাকাপাকি ভাবে ইতিহাস। তাতেও অবশ্য তরুণ মেসিকে তিনি সাহায্য করেছিলেন প্রথম দলের সঙ্গে মানিয়ে নিতে।

Advertisement

এত বছর পরে আজও মেসি-ম্যাজিকে মন্ত্রমুগ্ধ তিনি। ব্যালন ডি’অর প্রসঙ্গ উঠলে বলেই দিচ্ছেন তাঁর প্রাক্তন সতীর্থ ছাড়া আর কেউ যোগ্য নয় সেটা পাওয়ার। তিনি— ব্রাজিল কিংবদন্তি তথা ফুটবল জাদুকর রোনাল্ডিনহো। যিনি সাফ বলছেন, ‘‘অনেক ফুটবলার যোগ্য ব্যালন ডি’অর পাওয়ার। কিন্তু তাতেও আমি এক জনের নামই সবার আগে করব। লিওনেল মেসি।’’

শতবর্ষের কোপা আমেরিকার পর বিশ্বফুটবলকে চমকে দিয়ে আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে অবসর নিয়েছিলেন মেসি। সারা বিশ্বে ছড়িয়ে থাকা অসংখ্য মেসি ভক্তের মতো রোনাল্ডিনহো-ও তাঁকে আবেদন জানিয়েছিলেন ফিরে আসতে। প্রিয় বন্ধু তাঁর কথা রেখেছেন। আর্জেন্তিনায় দ্বিতীয়বারের জন্য সূচনা হয়েছে মেসি-যুগের। রোনাল্ডিনহো বলছেন, ‘‘মেসি খুশি হলেই আমি খুশি। কারণ ও আমার খুব ভাল বন্ধু। ও আর্জেন্তিনা দলে আবার ফিরেছে দেখেই আমার দারুণ লাগছে।’’

তবে ব্যালন ডি’অরের জন্য মেসিকে এগিয়ে রাখলেও, রোনাল্ডিনহো সাফ বলে দিচ্ছেন পেলে ও মারাদোনাকে কোনও দিন টপকাতে পারবে না তাঁর বন্ধু। ‘‘ফুটবলের ইতিহাস কিন্তু পেলে আর মারাদোনাকেই সবার থেকে এগিয়ে রাখবে। আমিও। ওরা দু’জনেই কিংবদন্তি,’’ বলছেন প্রাক্তন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন।

Advertisement

মেসি ছাড়া তাঁর ব্রাজিলের ওয়ান্ডারকিড নেইমারের উন্নতি দেখেও খুশি রোনাল্ডিনহো। নিজের সুন্দর ফুটবল নেইমারের মধ্যেও দেখতে পান, সেই কথাই জানালেন প্রাক্তন ব্যালন ডি’অর জয়ী ফুটবলার। ‘‘নেইমার দারুণ খেলছে। ওর উন্নতি দেখে আমি খুশি। ও এমন একটা ক্লাবে ইতিহাস গড়ছে যেখানে আমি এক সময় খেলেছি। তাই আরও আনন্দ হয়।’’

কিন্তু বিশ্বফুটবলে এখন কোটি টাকার প্রশ্ন হচ্ছে, চোটের সমস্যা কাটিয়ে কত দিনের মধ্যে মাঠে ফিরবেন মেসি? সমর্থকদের স্বস্তি দিয়ে অবশ্য বার্সা ওয়েবসাইটে এ দিন জানানো হয়, ট্রেনিংয়ে ফিরেছেন এলএম টেন।

আগামী দু’মাসে মেসির ক্যালেন্ডারটা রিয়াল মাদ্রিদ ও ব্রাজিলের মতো হেভিওয়েট ফিক্সচারে ভর্তি। তার আগে কিংবদন্তির অনুশীলনে ফেরা অবশ্যই দেশ ও ক্লাবের জন্য সুখবর। এখনও বল নিয়ে পুরোপুরি ট্রেনিং না করতে পারলেও হাল্কা স্ট্রেচিং ও ওয়ার্ম আপ করেছেন। দেপোর্তিভোর বিরুদ্ধে লা লিগার ম্যাচকেই পাখির চোখ করছেন মেসি। যদিও ক্লাবের তরফ থেকে সরকারি ভাবে কেউ মন্তব্য করেননি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.