Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২০ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

Ronald Koeman: কোমানের ভবিষ্যৎ প্রশ্নের মুখে, ক্ষমা চাইবেন না পেপ

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০৫:২২
সঙ্কটে: গ্রানাদা ম্যাচের উপরে নির্ভর করছে কোমানের ভবিষ্যৎ।

সঙ্কটে: গ্রানাদা ম্যাচের উপরে নির্ভর করছে কোমানের ভবিষ্যৎ।

লা লিগায় গ্রানাদার বিরুদ্ধে ম্যাচের উপরেই সম্ভবত নির্ভর করছে বার্সেলোনা ম্যানেজার রোনাল্ড কোমানের ভবিষ্যৎ! চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রথম ম্যাচে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে ঘরের মাঠে ০-৩ হারের পর থেকেই প্রবল চাপে রয়েছেন তিনি। স্পেনীয় সংবাদমাধ্যমের দাবি, বার্সেলোনার পরিচালন পর্ষদের সদস্যেরা নাকি প্রেসিডেন্ট জোয়ান লাপোর্তোর উপরে চাপ সৃষ্টি করছেন কোমানকে বরখাস্ত করার জন্য।

ক্যাম্প ন্যু-তে বায়ার্নের কাছে বার্সা যে ভাবে বিপর্যস্ত হয়েছে, তাতে রীতিমতো উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন সমর্থকেরা। হারের চেয়েও তাঁরা বেশি চিন্তিত বার্সা নিজস্বতা হারিয়ে ফেলছে বলে। পুরো ম্যাচে বিপক্ষের গোলে নির্ভুল লক্ষ্যে একটিও শট মারতে পারেননি মেম্ফিস দেপাইরা! বার্সার খেলার বিশেষত্বই হল পাসের বন্যায় বিপক্ষকে ভাসিয়ে দেওয়া। অথচ বায়ার্নের বিরুদ্ধে তা দেখা যায়নি। এখানেই শেষ নয়। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ঘরের মাঠে টানা তিনটি ম্যাচ হেরেছে বার্সা। গোল খেয়েছে ১০টি। বায়ার্নের বিরুদ্ধে বার্সা জিততে পারে বলে কেউ মনে করেননি। তার অন্যতম কারণ, লিয়োনেল মেসির প্যারিস সাঁ জারমাঁয় যোগদান। ম্যাচের পরে জেরার পিকে বলেছিলেন, “যা হওয়ার ছিল, তাই হয়েছে। এটাই আমাদের দল।” কোমানের প্রতিক্রিয়া ছিল, “আমাদের বাস্তবটা মেনে নিতেই হবে।”

পরিস্থিতি ক্রমশ জটিল হয়ে যাচ্ছে উপলব্ধি করে দিন দু’য়েক আগেই বার্সা প্রেসিডেন্ট সমর্থকদের উদ্দেশে ভিডিয়ো বার্তা দেন, “আপনাদের মতো আমিও অত্যন্ত হতাশ।” তবে কোমানকে এখনই বরখান্ত করলে আরও বেশি আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়বে বার্সা। ডাচ ম্যানেজারের সঙ্গে চুক্তি শেষ হচ্ছে আগামী বছরের জুনে । তার আগে কোমানকে বরখান্ত করলে ১০ মিলিয়ন (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ৮৭ কোটি) ইউরোর বেশি ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।

Advertisement

অস্বস্তিতে পেপ গুয়ার্দিওলাও! আর বি লাইপজ়িগের বিরুদ্ধে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ম্যাচ দেখতে ৫৫ হাজার দর্শকাসনের এতিহাদ স্টেডিয়ামে হাজির ছিলেন ৩৮ হাজার ৬২ জন। যা নিয়ে হতাশা প্রকাশ করেছিলেন তিনি। ক্ষুব্ধ ম্যাঞ্চেস্টার সিটির ভক্তদের ক্লাবের সচিব কেভিন পার্কার পেপকে বলেছিলেন, ‘‘কোচিংয়েই মনোনিবেশ করুন।’’ বৃহস্পতিবার ম্যান সিটি ম্যানেজার পাল্টা বলেছেন, ‘‘আমার মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চাওয়ার প্রশ্নই নেই।’’

আরও পড়ুন

Advertisement