Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৬ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

সংবর্ধনার মঞ্চে খুদেদের পরামর্শ সূর্যশেখরের

সংবর্ধনা মঞ্চ থেকেই রাজ্যে দাবার জন্য আরও শক্তিশালী কোচিংয়ের প্রয়োজন রয়েছে, বলে দেন সূর্য।

নিজস্ব সংবাদদাতা
১৫ অগস্ট ২০১৯ ০৫:১৪
Save
Something isn't right! Please refresh.
পুরস্কৃত: সংবর্ধিত সূর্যশেখর, সমৃদ্ধা, বৃষ্টি ও নীলাশ। বুধবার। নিজস্ব চিত্র

পুরস্কৃত: সংবর্ধিত সূর্যশেখর, সমৃদ্ধা, বৃষ্টি ও নীলাশ। বুধবার। নিজস্ব চিত্র

Popup Close

সম্প্রতি জাতীয় ও আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে সফল রাজ্যের দাবাড়ুদের বুধবার সংবর্ধিত করল আলেখিন চেস ক্লাব। অনূর্ধ্ব ১৭ জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে সেরা নীলাশ সাহা, অনূর্ধ্ব-১৭ জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে রানার্স আরণ্যক ঘোষ, অনূর্ধ্ব-১৭ মেয়েদের জাতীয় চ্যাম্পিয়ন সমৃদ্ধা ঘোষ, অনূর্ধ্ব-১৪ বিভাগে কমনওয়েলথ দাবা চ্যাম্পিয়নশিপে সোনাজয়ী বৃষ্টি মুখোপাধ্যায় ও গ্র্যান্ডমাস্টার সূর্যশেখর গঙ্গোপাধ্যায়কে সংবর্ধনা এবং আর্থিক পুরস্কার দেওয়া হয়।

সূর্য সম্প্রতি চিনের হুনানে সুপার স্ট্রং বেল্ট আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হন। যে জয়ের পথে ছ’জন ২৭০০-রও বেশি রেটিং পয়েন্টের দাবাড়ুকে পিছনে ফেলে দিয়েছিলেন তিনি। যা সূর্যর খেলোয়াড় জীবনের অন্যতম সেরা জয়। সব মিলিয়ে সম্ভাব্য ৯ পয়েন্টের মধ্যে সাত পয়েন্ট স্কোর করেন সূর্য। সূর্যর রেটিং এখন ২৬৫৭। প্রবল শারীরিক অসুস্থতা সামলে এই সাফল্য সূর্যকে আসন্ন দাবা বিশ্বকাপে কতটা আত্মবিশ্বাস দেবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘‘মার্চে বিশ্ব দলগত দাবা চ্যাম্পিয়নশিপে সোনা এবং চিনে এই জয় আমাকে অনেকটাই আত্মবিশ্বাস দেবে। আমার খেলোয়াড় জীবনের অন্যতম সেরা জয়। কারণ, খুব কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতার মধ্যে পড়তে হয়েছিল।’’ দাবা বিশ্বকাপে ১০ জন ভারতীয় দাবাড়ু লড়বেন। যার মধ্যে সূর্য অন্যতম। ৪ সেপ্টেম্বর থেকে রাশিয়ায় হবে দাবা বিশ্বকাপ।

পাশাপাশি স‌ংবর্ধনা মঞ্চে খুদে দাবাড়ুদের উদ্দেশে সূর্যর পরামর্শ, ‘‘হারতে ভয় পেলে চলবে না। দু’একটা ম্যাচ খেলেই যদি কেউ হতাশ হয়ে পড়ে তা হলে দাবা তাদের জন্য নয়। তোমাদের কঠিন পরিস্থিতির কথা ভেবে তৈরি হতে হবে। একই সঙ্গে শারীরিক ভাবেও ফিট থাকা ভীষণ জরুরি।’’ সংবর্ধনা মঞ্চ থেকেই রাজ্যে দাবার জন্য আরও শক্তিশালী কোচিংয়ের প্রয়োজন রয়েছে, বলে দেন সূর্য। অন্য রাজ্যের তুলনায় বাংলা থেকে আরও দাবাড়ু তুলে আনতে হলে আরও পরিকাঠামোগত উন্নয়ন চাই, বলে একমত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত বিশিষ্টরা।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement