×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৬ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

কষ্ট করে জয় বার্সার, চাপে সোলসার

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা০৬ নভেম্বর ২০২০ ০৪:৪৯
দ্বৈরথ: ডায়নামো কিয়েভের রক্ষণ ভেঙে এগোচ্ছেন মেসি। এএফপি

দ্বৈরথ: ডায়নামো কিয়েভের রক্ষণ ভেঙে এগোচ্ছেন মেসি। এএফপি

বিপর্যস্ত ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড। রক্ষণের ভুলে আর্সেনালের কাছে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে হেরেছিল ওয়ে গুন্নার সোলসারের দল। বুধবার রাতে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বাসাকসেহির বিরুদ্ধেও একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি। ১-২ হারের পরে প্রশ্নের মুখে ম্যান ইউ ম্যানেজারের ভবিষ্যৎ।

বাসাকসেহির ৩৫ বছর বয়সি দেমবা বা যে ভাবে ১২ মিনিটে বিনাবাধায় গোল করে যান, তা নিয়ে উত্তাল ফুটবল দুনিয়া। ম্যান ইউয়ের প্রাক্তন তারকা ও সোলসারের সতীর্থ রিয়ো ফার্ডিনান্ড খোলাখুলি বলেছেন, ‘‘অপেশাদার ফুটবলেও এ রকম কখনও দেখা যাবে না। রক্ষণ কোথায়? রক্ষণ সংগঠিত করার জন্য কাউকে দায়িত্ব নিতেও তো দেখা গেল না।’’ আর এক প্রাক্তন তারকা রবিন ফান পার্সি বলেছেন, ‘‘এই ভাবে গোল খেতে আমি কখনও দেখিনি।’’

ম্যান ইউ ম্যানেজারও একমত ফান পার্সির সঙ্গে। বলেছেন, ‘‘এই পর্যায়ের ফুটবলে এ রকম গোল খেতে কখনও দেখা যাবে না।’’ তিনি যোগ করেছেন, ‘‘আমরা নিজেদের দায়িত্ব পালন করতে ব্যর্থ হয়েছি। সব দায় আমার।’’ ম্যান ইউয়ে তাঁর ভবিষ্যৎ নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করার সোলসারের প্রতিক্রিয়া, ‘‘এত তাড়াতাড়ি এই বিষয়ে আমি কোনও মন্তব্য করব না। ক্লাব আমাকে নিয়োগ করেছে। আমি নিজের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টাই করছি।’’

Advertisement

দুরন্ত চেলসি: ম্যান ইউ শিবিরে বিপর্যয়ের রাতে উৎসব চেলসিতে। ঘরের মাঠে ফ্র্যাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের দল ৩-০ জিতল ৪০ মিনিটে দশ জন হয়ে যাওয়া রেনে-র বিরুদ্ধে। পেনাল্টি থেকে জোড়া গোল করেন টিমো ওয়ের্নার। একটি গোল করেন ট্যামি আব্রাহাম।

বার্সার জয়: করোনায় আক্রান্ত হয়ে ডায়নামো কিয়েভের ছ’জন ফুটবলার ছিটকে গিয়েছেন। পরিস্থিতি সামলাতে ছ’জন জুনিয়র ফুটবলারকে নিয়ে বার্সলোনায় খেলতে গিয়েছিল তারা। তা সত্ত্বেও ডায়নামো কিয়েভ কঠিন সময় উপহার দিল বার্সেলোনাকে। কষ্ট করে জিততে হল লিয়োনেল মেসিদের। ৫ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করেন মেসি। ৬৫ মিনিটে ২-০ করেন জেরার পিকে। কিন্তু জয়ের নায়ক প্রায় তিন মাস পরে মাঠে ফেরা গোলরক্ষক মার্ক আন্দ্রে টার স্টেগেন। তিনি একাধিক নিশ্চিত গোল না বাঁচালে জয় অধরাই থাকত বার্সেলোনার। মাত্র একবারই পরাস্ত হন টার স্টেগেন। ৭৫ মিনিটে ব্যবধান কমান ভিক্তর সাইগনকফ।

মোরাতার কীর্তি: জোড়া গোল করেই জুভেন্টাসের জার্সিতে শততম ম্যাচ স্মরণীয় করে রাখলেন আলভারো মোরাতা। ফেরেঙ্কভারোসের বিরুদ্ধে ইটালির ‘দ্য ওল্ড লেডি’ জিতল ৪-১। একটি গোল করেন পাওলো দিবালা। আত্মঘাতী গোল করেন ফেরেঙ্কভারোসের লাশা দাভিল। ব্যবধান কমান ফ্র্যাঙ্ক বোলি। করোনামুক্ত ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো শুরু থেকে খেললেও গোল পাননি।

ব্যর্থ পিএসজি: ৬ মিনিটে অ্যাঙ্খেল দি মারিয়ার গোলে এগিয়েও লাইপজ়িসের বিরুদ্ধে ১-২ হারল প্যারিস সাঁ জারমাঁ। লাল কার্ড দেখেন কিলিয়ান এমবাপে ও ইদ্রিসা গেয়ি।

Advertisement