পোষ্যকে রেখে যেতে হলে

• বন্ধুবান্ধব বা আত্মীয়দের মধ্যে আপনার পোষ্যটিকে যাঁরা বিশেষ ভালবাসেন, তাঁদের কাছে রেখে যেতে পারেন। তবে সেটা যেন খুব বেশি দিনের জন্য না হয়। ওষুধপত্র, ডগফুড বা ক্যাটফুড রেখে যাবেন।

• খুব ভাল হয় যদি পশুপ্রেমী কোনও প্রতিবেশী বা বন্ধুর নিজের পোষ্য থাকে এবং আপনার পোষ্যটির সঙ্গে তার ভাল বন্ধুত্ব থাকে। তা হলে সেই বাড়িতে আপনার পোষ্যটিও বন্ধুবেষ্টিত থাকবে।

• পোষ্যদের ক্রেশ বা কেনেলেও রেখে যেতে পারেন। তবে সে ক্ষেত্রে খাঁচায় রাখা হবে পোষ্যকে। পোষ্য কী ওষুধ খায়, কোনও বিশেষ খাবার তার পছন্দ বা অপছন্দ কি না, তা-ও জানান।

• অ্যাকোয়ারিয়াম বা ফিশ বোল রেখে গেলে তা পরিষ্কার রাখার জন্য যা সলিউশন প্রয়োজন রেখে যাবেন। পাখির খাঁচা হলে সেটাও নিয়মিত পরিষ্কার রাখা প্রয়োজন।

 

রেখে যাওয়ার সুবিধে

• বন্ধুবান্ধব বা প্রতিবেশীর সঙ্গে থাকলে আপনার পোষ্য চেনা পরিবেশে থাকতে পারবে।

• ক্রেশ বা কেনেলে রেখে গেলে পোষ্যর খাবার, খেলনা, খাঁচা কোনও কিছুর জন্যই ভাবতে হবে না। 

• ক্রেশ বা কেনেলে ডাক্তার আসেন নিয়মিত। সুতরাং অসুখ করলেও পোষ্যটি থাকবে যত্নে।

 

রেখে যাওয়ার অসুবিধে

• অনেকক্ষণ চেনা মানুষদের দেখতে না পেলে পোষ্যরা একাকীত্ব অনুভব করে।

• খাওয়াদাওয়ার সময়ের গোলমাল হয়ে গেলে পোষ্যটির শরীর খারাপ হতে পারে। এটি খেয়াল রাখা ভাল।

• অচেনা পরিবেশে রেখে গেলে পোষ্যরা অনেক সময়ে অপরিচিতকে আক্রমণ করে।

 

পোষ্যকে নিয়ে যেতে হলে

• একা রেখে না যেতে চাইলে সঙ্গেই নিয়ে যান। তবে সেটা যেন কাছেপিঠে হয়। পাবলিক ট্রান্সপোর্টে পোষ্য নিয়ে ঘোরা অনুমতিসাপেক্ষ। তাই নিজেদের গাড়িতে যদি তাকে নিয়ে ট্রাভেল করেন, সবচেয়ে ভাল।

• ট্রেনে নিয়ে গেলে ফার্স্ট ক্লাস এসি কুপে সিট বুক করুন। এক্সট্রা বার্থ বুক করে নেবেন, তা হলে পোষ্যটির পক্ষে জার্নি আরামদায়ক হবে। জেনারেল কম্পার্টমেন্টে যেতে চাইলে বোর্ডিং স্টেশনের পার্সেল অফিসে যোগাযোগ করে পোষ্যের জন্য টিকিট কাটুন।

• পোষ্য নিয়ে ঘোরার এক একটি এয়ারলাইন্সের এক এক রকম পলিসি। পোষ্যের ভ্যাক্সিনেশন সার্টিফিকেট সঙ্গে রাখতেই হবে। ওজন যদি পাঁচ কিলোগ্রামের মধ্যে হয়, তা হলে কেবিনেই ট্রাভেল করতে পারবেন। কিন্তু ওজন তার চেয়ে বেশি হলে কার্গো হোল্ডেই তাকে সফর করতে হবে।

 

নিয়ে যাওয়ার সুবিধে

• সঙ্গে নিয়ে গেলে তাকে নিয়ে দুশ্চিন্তা করতে হবে না। পোষ্যও নিঃসঙ্গ বোধ করবে না।

 

নিয়ে যাওয়ার অসুবিধে

• সব জায়গায় পোষ্যের প্রবেশানুমতি না থাকতে পারে।

• সব জায়গায় পোষ্যের জন্য দরকারি ওষুধপত্র-খাবার না-ও মিলতে পারে।