Advertisement
১৯ জুলাই ২০২৪
Mamata Banerjee Nabanna Meeting

মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসায় জেলার তিন পুরসভা

মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসার পরে স্বভাবতই খুশি পুরপ্রধান ও পুরপ্রতিনিধিরা। গঙ্গা পাড়ের পুরসভা হালিশহরেও গ্রীষ্মকালে জলসঙ্কট ছিল নিত্যকার ঘটনা।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নিজস্ব প্রতিবেদন
শেষ আপডেট: ২৫ জুন ২০২৪ ০৭:৪২
Share: Save:

পানীয় জল, আবাসন, পরিচ্ছন্নতা — এই তিনটি বিষয়ের উপরে ভিত্তি করে রাজ্যের পুরসভাগুলিকে মার্কশিট দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবার নবান্ন সভাঘরে পুরপ্রধান, পুরনিগমগুলির মেয়র এবং প্রশাসনিক আধিকারিকদের ডেকেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। এর মধ্যে উত্তর ২৪ পরগনা জেলার হালিশহর পুরসভা পানীয় জলের জন্য, হাবড়া আবাসনের জন্য এবং বসিরহাট পুরসভাকে পরিচ্ছন্নতার জন্য প্রশংসা করেছেন মমতা।

মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসার পরে স্বভাবতই খুশি পুরপ্রধান ও পুরপ্রতিনিধিরা। গঙ্গা পাড়ের পুরসভা হালিশহরেও গ্রীষ্মকালে জলসঙ্কট ছিল নিত্যকার ঘটনা। ২৩টি ওয়ার্ডের পুরসভার ৯টি ওয়ার্ডেই মে-জুন মাসে নলবাহিত জল তো দূর টিউবওয়েলেও পানযোগ্য জল মিলত না বলে অভিযোগ ছিল। সেই সঙ্কট কাটিয়ে দিনের মধ্যে ১২ ঘণ্টা নিঃশুল্ক নলবাহিত জলের ব্যবস্থা করেছে পুরসভা। পুরপ্রধান শুভঙ্কর ঘোষ বলেন, ‘‘প্রতিটি ওয়ার্ডেরবাড়ি বাড়ি জল পৌঁছে দেওয়াআমাদের কাছে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজ ছিল এ বার গরমের আগে।৩৮টা বুস্টার পাম্প থেকে বাড়িয়ে আমরা এখন ৪৫টা পাম্প চালু রাখতে পারছি প্রতিদিন। পুরকর্মী ও নাগরিকেরাই এই কৃতিত্বের অধিকারী। সবাই সহযোগিতা করেছেন। স্থানীয় বাসিন্দা সোনালি রায় বলেন, ‘‘পুরসভায় এখন জল নিয়ে কোনও অসন্তোষ নেই।’’

সরকারি প্রকল্পে গরিব মানুষদের পাকা বাড়ি স্বচ্ছতার সঙ্গে করার কৃতিত্ব পেয়েছে হাবড়া পুরসভা। মমতার মার্কশিটে আবাসনের সূচকে প্রথম নাম হাবড়ার। পুরপ্রধান নারায়ণচন্দ্র সাহা বলেন, ‘‘কোনও সুপারিশ নয়, যোগ্যরাই একমাত্র সরকারি প্রকল্পে বাড়ি পেয়েছেন। বাড়ি তৈরিতেও ইমারতি সামগ্রী নেওয়ায় সিন্ডিকেট হতে দেয়নি এই পুরসভা।’’ যদিও স্থানীয় সিপিএম নেতা আশুতোষ রায়চৌধুরীর দাবি, ‘‘কোনও স্বচ্ছতা নেই। পাকা বাড়ি আছে এমন অনেকে প্রকল্পের বাড়ি পেয়েছেন।’’

অন্য দিকে, সীমান্তবর্তী শহর বসিরহাটের পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা নিয়ে এ দিন প্রশংসা করেন মুখ্যমন্ত্রী। পরিচ্ছন্ন শহরের তকমা জুটেছে এই শহরের। পুরপ্রধান অদিতি মিত্র বলেন, ‘‘আবর্জনা থেকে সার তৈরির প্রকল্পকে গুরুত্ব দেওয়ায় শহরকে অনেক সহজে পরিষ্কার রাখা গিয়েছে।’’

বিজেপির রাজ্য নেত্রী ফাল্গুনী পাত্র অবশ্য মুখ্যমন্ত্রীর মূল্যায়ন নিয়ে কটাক্ষ করে বলেন, ‘‘দুর্নীতিতে ভরে গিয়েছে রাজ্য। সেখানে স্বচ্ছতা ও কাজের নিরিখে পুরসভাগুলিকে যে নম্বর মুখ্যমন্ত্রী দিলেন তা নিয়ে নাগরিক সমাজ কী বলছেন তাতেই আসল মূল্যায়ন হবে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

North 24 Parganas Mamata Banerjee
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE