Advertisement
২০ মে ২০২৪
Gangasagar Fair

গঙ্গাসাগর যাওয়ার পথে মৃত্যু প্রৌঢ়ার, সংক্রান্তির আগে ক্রমশ ভিড় বাড়ছে মেলায়

জেটিঘাটের কাছে আচমকাই অসুস্থ হয়ে পড়েন ওই প্রৌঢ়া। অসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগের কর্মীরা তড়িঘড়ি তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু চিকিৎসকেরা জানান, পথেই মৃত্যু হয়েছে তাঁর।

গঙ্গাসাগরে মানুষের ঢল।

গঙ্গাসাগরে মানুষের ঢল। — ফাইল ছবি।

নিজস্ব সংবাদদাতা
নামখানা শেষ আপডেট: ১৩ জানুয়ারি ২০২৩ ২০:৩৯
Share: Save:

গঙ্গাসাগরের পথে আবার এক পুণ্যার্থীর মৃত্যু। বিহারের বাসিন্দা ৭০ বছরের প্রৌঢ়া গঙ্গাসাগর যাওয়ার পথে অসুস্থ হয়ে পড়েন। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকেরা।

১০ জানুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে গঙ্গাসাগর মেলা। দলে দলে পুণ্যার্থী আসছেন দক্ষিণ ২৪ পরগনার এই তীর্থস্থানে। সেই পথেই শুক্রবার মৃত্যু হল এক প্রৌঢ়ার। গঙ্গাসাগর মেলায় যাবেন বলে নামখানায় এসে পৌঁছেছিলেন বিহারের বাসিন্দা রামপরি দেবী। শুক্রবার বিকেলে স্বামী গোপী মাহাতোর সঙ্গে দাঁড়িয়ে ছিলেন নামখানার ২ নম্বর পয়েন্টের জেটিঘাটে। সেখানেই অসুস্থ হয়ে পড়েন রামপরি। তাঁকে দ্রুত উদ্ধার করে অসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগের কর্মীরা নারায়ণপুর প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যান। কিন্তু পথেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে জানান চিকিৎসকেরা। পুণ্য সঞ্চয় করতে গঙ্গাসাগরে এসে এ ভাবে আচমকা রামপরির মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছেন তাঁর স্বামী গোপী।

এ বার নেই কুম্ভ মেলা। তাই গঙ্গাসাগরকেই পাখির চোখ করেছেন পুণ্যার্থীরা। ১০ জানুয়ারি, মেলা শুরু হওয়ার দিন থেকেই ঢল নেমেছে তীর্থযাত্রীদের। বস্তুত, প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে গঙ্গাসাগর এসেও রেকর্ড ভিড় হওয়ার কথা জানিয়ে গিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। কচুবেড়িয়া ঘাট থেকেই রাস্তার দখল মোটামুটি ভাবে চলে গিয়েছে পুণ্যার্থীদের দখলে। দলে দলে আসছেন তাঁরা। সকলেরই গন্তব্য গঙ্গাসাগর মেলা। বৃহস্পতিবার কার্যত একই ভাবে মৃত্যু হয়েছিল আরও এক পুণ্যার্থীর। হরিয়ানা থেকে এসেছিলেন ধরম পাল। বাস থেকে নেমেই অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। এ বার মৃত্যু হল আরও এক পুণ্যার্থীর।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Gangasagar Fair namkhana
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE