Advertisement
১৫ জুন ২০২৪
Food Poisoning

কুলতলিতে ধর্মীয় অনুষ্ঠানে খাবারে বিষক্রিয়ায় অসুস্থ শতাধিক, মৃত্যু হল এক কিশোরীর

ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক অয়ন্তিকা মণ্ডল জানিয়েছেন, মোট ১৫০ জনকে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়েছিল৷ তাঁদের মধ্যে ৫ জনকে ভর্তি করানো হয়েছে৷ ৩০ জনকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে।

Food poison at a regious function

স্বাস্থ্যকেন্দ্রে প্রাথমিক চিকিৎসা করানো হয় অসুস্থদের। নিজস্ব চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কুলতলি শেষ আপডেট: ২৬ মার্চ ২০২৩ ১৬:২৭
Share: Save:

এক ধর্মীয় অনুষ্ঠানে খাবারে বিষক্রিয়ার জেরে অসুস্থ হয়ে পড়লেন শতাধিক। মৃত্যুও হল এক জনের। তার নাম হাফিজা সর্দার (১১)। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার কুলতলির পাখিরালয় গ্রামে।

প্রশাসন সূত্রে খবর, শুক্রবার একটি ধর্মীয় অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। সেই অনুষ্ঠানে সকলে খাওয়াদাওয়া করেন। তখনকার মতো কিছু না হলেও ভোরবেলা থেকে একের পর এক গ্রামবাসী অসুস্থ হয়ে পড়েন। অসুস্থদের মধ্যে বাচ্চাদের সংখ্যাই বেশি বলে দাবি গ্রামবাসীদের। অসুস্থদের সকলকে কুলতলি ব্লক স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়।

ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক অয়ন্তিকা মণ্ডল জানিয়েছেন, মোট ১৫০ জনকে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়েছিল৷ তাঁদের মধ্যে ৫ জনকে ভর্তি করানো হয়েছে৷ ৩০ জনকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে৷ ৩ জনের শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় বারুইপুর মহকুমা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। পাখিরালয় গ্রামের বাসিন্দা ইমদাদুল্লা শেখ এবং হায়দার মোল্লা জানান, ভোরবেলা থেকেই অসুস্থবোধ করতে থাকেন গ্রামবাসীরা। শিশুদের পায়খানা, বমি শুরু হয়। তার পরই অসুস্থদের ব্লক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। তাঁদের মধ্যে অনেককেই নিমপীঠ ও পদ্মেরহাট হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে বলে প্রশাসন সূত্রে খবর৷

মৃত কিশোরী হাফিজার আত্মীয় মহম্মদ কুমার আলি সর্দার ও আবু বক্কর সর্দার জানান, ভোরে আচমকাই অসুস্থ হয়ে পড়ে হাফিজা। প্রথমে স্থানীয় ডাক্তারের কাছে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে৷ শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে বারুইপুর নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হয় তার৷ খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থলে যান কুলতলির বিধায়ক গণেশ মণ্ডল।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Food Poisoning Kultali
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE