×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২১ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

তফসিলি সংরক্ষিত বনগাঁ উত্তরে শঙ্কর আঢ্যকে দাঁড় করানোর দাবি

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা০২ ডিসেম্বর ২০২০ ১১:৩১
এই পোস্টই ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

এই পোস্টই ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শঙ্কর আঢ্যর নামে পোস্টার ঘিরে শোরগোল। বিধানসভা নির্বাচনের আগে বেশ কিছুদিন ধরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ওই পোস্টার ঘুরছে। তাতে বলা হয়েছে, ‘বনগাঁ উত্তর বিধানসভায় তৃণমূল কংগ্রেসের বিধায়ক হিসেবে শঙ্করকে আঢ্যকে চাই’।

বনগাঁ উত্তর কেন্দ্র থেকে দু’-দু’বার জয়লাভ করা বিশ্বজিৎ দাস ইতিমধ্যেই বিজেপি-তে যোগ দিয়েছেন। তিনি এ বার বিজেপি থেকে ওই কেন্দ্রে দাঁড়াতে পারেন। কিন্তু শঙ্কর আঢ্য কী ভাবে ওই কেন্দ্রে দাঁড়াবেন, সেই প্রশ্নই এখন শাসকদলের অন্দরে ঘুরপাক খাচ্ছে। কারণ বনগাঁ উত্তর কেন্দ্রটি তফসিলি প্রার্থীর জন্য সংরক্ষিত। শঙ্কর তফসিলি নন বলেই জানেন বনগাঁর সাধারণ মানুষ।

এ নিয়ে প্রশ্ন করলে সরাসরি কোনও জবাব দেননি শঙ্কর। বরং গোটাটাই দলের উপর ছেড়ে দিয়ে বলেন, ‘‘শংসাপত্র আছে কী নেই, সেটা দল দেখবে। সরকারি আধিকারিক দেখবেন। দল যাকে বেছে নেবে, সে-ই প্রার্থী হবে। এখানে কোনও জালিয়াতি নেই।’’ সোশ্যাল মিডিয়ায় কী ঘুরছে, তা জানা নেই বলেও দাবি করেন তিনি। জানিয়ে দেন, বরং তৃণমূলের সঙ্গে যাঁরা বিশ্বাসঘাতকতা করেছেন, তাঁদের উপযুক্ত জবাব দিতে তৈরি তাঁরা।  

Advertisement

তফসিলি না হয়েও যদি শঙ্কর ভোটে দাঁড়ান, তাহলে কোর্টে যাবেন না বলে বক্রোক্তি করেছেন বিশ্বজিৎ। গত লোকসভা নির্বাচনে বনগাঁ উত্তরে বিজেপি ২৮ হাজার ৩৭০ ভোটে জিতেছিল। এ বারে তার দ্বিগুণ ভোট পাবেন বলে আত্মবিশ্বাসী তিনি।

তৃণমূল কাকে প্রার্থী করবে, তা নিয়ে তাঁদের কোনও মাথাব্যথা নেই বলে জানিয়েছেন বনগাঁ উত্তরের সিপিএম-এর এরিয়া কমিটি সম্পাদক সুমিত কর। তিনি বলেন, ‘‘কাকে প্রার্থী করবে সেটা তৃণমূলের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার। কিন্তু ওই আসনটি তফসিলি সংরক্ষিত। শঙ্কর তফসিলি কি না, সেটা আমাদের জানা নেই।’’

Advertisement