Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৪ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

রাস্তা নিয়ে মন্ত্রীকে টুইট

নিজস্ব সংবাদদাতা
রানিগঞ্জ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ ০৪:২৩
কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে টুইট করলেন রাজেন্দ্রপ্রসাদ খেতান। নিজস্ব চিত্র

কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে টুইট করলেন রাজেন্দ্রপ্রসাদ খেতান। নিজস্ব চিত্র

শহরের মূল রাস্তা নেতাজি সুভাষ বসু রোড। এই রাস্তাকে ৬০ নম্বর জাতীয় সড়ক থেকে বিচ্ছিন্ন করা হোক। এই মর্মে শনিবার রাতে কেন্দ্রীয় পরিবহণমন্ত্রী নীতিন গড়কড়িকে টুইট করার কথা জানিয়েছেন ‘সাউথ বেঙ্গল চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ড্রাস্টিজ়’-এর কার্যকরী সভাপতি রাজেন্দ্রপ্রসাদ খেতান।

পুরসভা কার্যালয় থেকে পঞ্জাবি মোড় পর্যন্ত চার কিলোমিটার এই রাস্তার সঙ্গে রানিগঞ্জের সমস্ত সংযোগকারী রাস্তাগুলি যুক্ত হয়েছে। ২০০৩-এ জাতীয় সড়ক সম্প্রসারণের সময়ে রাজ্যের তৎকালীন মন্ত্রী বংশগোপাল চৌধুরীর উদ্যোগে এই রাস্তাকে জাতীয় সড়কের সঙ্গে সংযুক্ত করা হয়। যদিও তখনও রানিগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স নেতাজি সুভাষ বসু রোডকে এড়িয়ে জাতীয় সড়ক সম্প্রসারণ করার আর্জি জানিয়েছিল। রাজেন্দ্রবাবুর দাবি, ২০০৬-এ আসানসোল দুর্গাপুর উন্নয়ন পর্ষদের (এডিডিএ) উদ্যোগে রানিসায়র মোড় থেকে গির্জাপাড়া পর্যন্ত বাইপাস তৈরি করা এবং নেতাজি সুভাষ বসু রোডকে জাতীয় সড়কের থেকে বিচ্ছিন্ন করার কথা জানানো হয়। এডিডিএ রানিগঞ্জের বল্লভপুর রেল লাইন লাগোয়া এলাকা থেকে কুমারবাজারের পিছন দিক হয়ে ২ নম্বর জাতীয় সড়কের মঙ্গলপুর পর্যন্ত একটি বাইপাস রাস্তা তৈরিরও পরিকল্পনা নেওয়া হয়। কিন্তু কোনও কাজই হয়নি বলে অভিযোগ।

এই পরিস্থিতিতে, শহরের মূল রাস্তাটিতে জাতীয় সড়কের যানবাহন চলাচল করছে। ফলে, রাস্তার চাপ বাড়ছে। ঘটছে দুর্ঘটনাও। তা ছাড়া, গত চার মাসে শিশুবাগান মোড়ে তিন বার রাস্তায় ধসও নেমেছে। ‘রানিগঞ্জ সিটিজেন্স ফোরাম’-এর সভাপতি রামদুলাল বসুরও অভিযোগ, ‘‘নেতাজি সুভাষ রাস্তাকে জাতীয় সড়কে রূপান্তরিত করায় শহরবাসীর দুর্ভোগ বেড়েছে।’’ রানিগঞ্জের সিপিএম বিধায়ক রুনু দত্তও একই অভিযোগ করে জাতীয় সড়ক থেকে এই রাস্তাকে বিচ্ছিন্ন করার দাবি জানিয়েছেন। আসানসোল পুরসভার মেয়র জিতেন্দ্র তিওয়ারি জানান, বিষয়টি রাজ্য সরকারের সংশ্লিষ্ট দফতর গুরুত্ব দিয়ে দেখছে।

Advertisement

জাতীয় সড়ক কর্তৃপক্ষের তরফে এগজ়িকিউটিভ ইঞ্জিনিয়ার প্রলয় চক্রবর্তী বলেন, ‘‘সাহেবগঞ্জ থেকে মঙ্গলপুর পর্যন্ত বাইপাসের জন্য জমি অধিগ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। এই কাজ শেষ হলে, রানিগঞ্জের রাস্তাটি জাতীয় সড়ক থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাবে।’’

আরও পড়ুন

Advertisement