Advertisement
১৫ জুন ২০২৪
Bhawanipur Murder Case

Bhowanipore Couple Murder Case: শীঘ্রই ভবানীপুরের খুনের কিনারা হবে, ঘটনাস্থলে পৌঁছে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা

হরিশ মুখার্জি রোডে গুজরাতি দম্পতিকে হত্যার ঘটনায় ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। নিহত দম্পতির কন্যার সঙ্গে কথাও বলেন মমতা।

হরিশ মুখার্জি রোডে নিহত দম্পতির বাড়িতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

হরিশ মুখার্জি রোডে নিহত দম্পতির বাড়িতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৮ জুন ২০২২ ১৬:০০
Share: Save:

ভবানীপুরের খুনের ঘটনার ৯৯ শতাংশ তদন্ত সম্পূর্ণ হয়ে গিয়েছে, শীঘ্রই খুনের কিনারা হয়ে যাবে বলে জানিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

বুধবার ভবানীপুরে নিহত শাহ দম্পতির বাড়িতে আসেন মমতা। সেখানে পৌঁছে ঘটনাস্থল ঘুরে দেখে মমতা সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘ভবানীপুরে এ ধরনের ঘটনা বরদাস্ত করব না। ভবানীপুর শান্ত ছিল শান্তই থাকবে।’’

মমতার সঙ্গে ছিলেন কলকাতার পুলিশ কমিশনার বিনীত গোয়েল এবং মেয়র ফিরহাদ হাকিম। তাঁদের পাশে নিয়েই মমতা বলেন, ‘‘ব্যক্তিগত শত্রুতা থেকে খুন করা হয়েছে বলে কিছু তথ্য পুলিশের হাতে এসেছে। পুলিশ সেই সব তথ্য খতিয়ে দেখছে। যেহেতু মামলাটি তদন্তাধীন, তাই এ নিয়ে এখনই আর মন্তব্য করব না। তবে খুব শীঘ্রই দোষীরা শাস্তি পাবে।’’

সোমবার দুপুরে মুখ্যমন্ত্রীর পাড়াতেই খুন হন শাহ দম্পতি। ময়নাতদন্তের প্রাথমিক রিপোর্ট অনুযায়ী, ব্যবসায়ী অশোক শাহকে ছুরি মেরে খুন করা হয়। প্রাথমিক তদন্তের ভিত্তিতে পুলিশের অনুমান, তাঁর স্ত্রী রশ্মিতা শাহকে গুলি করে খুন করা হয়েছে। পুরো ঘটনাটি ঘটে সোমবার দুপুর দেড়টা নাগাদ। স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রীর পাড়াতে হাই সিকিওরিটি জোনে দিন দুপুরে খুনের ঘটনায় ভবানীপুরের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে। বুধবার ঘটনাস্থল থেকে করা মমতার সাংবাদিক বৈঠকেও এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হয়। জবাবে প্রশ্নকর্তাকে মমতা বলেন, ‘‘দু’ একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা দিয়ে এলাকার নিরাপত্তার বিচার করা ঠিক হবে না। ভবানীপুর শান্ত এলাকা। শান্তই থাকবে।’’

উল্লেখ্য, শাহ দম্পতির তিন কন্যার মধ্য়ে দু’জনের সঙ্গে মঙ্গলবারই ফোনে কথা হয়েছিল মুখ্যমন্ত্রীর। মমতা তাঁদের আশ্বস্ত করে জানিয়েছিলেন, তাঁরা যেন পুলিশের তদন্তে আস্থা রাখেন। শীঘ্রই দোষীরা ধরা পড়বে। তার পরেই বুধবার উত্তরবঙ্গ সফর সেরে মমতা সোজা চলে আসেন নিহত শাহ দম্পতির বাড়িতে।

সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তেফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ

সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE