Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

প্রাথমিক পরীক্ষায় উত্তরবঙ্গে আরও চার জনের করোনা সংক্রমণ

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০১ এপ্রিল ২০২০ ১০:৫৪
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

উত্তরবঙ্গ তথা রাজ্যে আরও চার জনের করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা। উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে টেস্টের পর কোভিড-১৯ পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে তাঁদের। তবে দ্বিতীয় বার নিশ্চিত হওয়ার জন্য নমুনা পাঠানো হয়েছে কলকাতার নাইসেডে।

গত ৩০ মার্চ সোমবার করোনা আক্রান্ত হয়ে উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে কালিম্পংয়ের এক মহিলার মৃত্যু হয়। সম্ভাব্য আক্রান্ত এই চার জনই ওই মহিলার পরিবারের সদস্য ও আত্মীয়। চিকিৎসকদের আশঙ্কা, ওই বৃদ্ধের থেকেই আত্মীয়-পরিজনদের মধ্যে সংক্রমণ ছড়িয়েছে। উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ সূত্রে জানা গিয়েছে, নতুন এই চার জনের মধ্যে ৩ জনই ওই মহিলার পরিবারের সদস্য। অন্য জন ডুয়ার্সের বাসিন্দা।

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, কালিম্পংয়ের ওই মহিলার সংক্রমণ নিশ্চিত হওয়ার পরেই পরিবার ও আত্মীয়দের কোয়রান্টিনে পাঠানো হয়। নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয় উত্তরবঙ্গ মেডিক্যালেই। তাঁদের মধ্যে বুধবার ৪ জনের করোনা সংক্রমণ নিশ্চিত হয়েছে। যদিও উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষের বক্তব্য, তাঁরা যেহেতু সদ্য করোনাভাইরাসের পরীক্ষা শুরু করেছেন, তাই পরীক্ষায় পজিটিভ রিপোর্ট এলেও এখনই তা নিশ্চিত করা যাবে না। নাইসেডের পরীক্ষাতেও সংক্রমণ নিশ্চিত হলে তবেই তা বলা যাবে।

Advertisement

আরও পড়ুন: এক দিনে আক্রান্ত ১০, করোনায় বঙ্গে মৃত আরও ২

স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে খবর, কালিম্পংয়ের মৃত ওই মহিলা চেন্নাইয়ে মেয়ের চিকিৎসার জন্য গিয়েছিলেন। সেখান থেকে ১৯ তারিখ সকালে কালিম্পংয়ের বাড়িতে ফেরেন। ওই দিন কোনও সমস্যা না থাকলেও পরের দিনই জ্বর ও অন্যান্য উপসর্গ দেখা দেয়। কালিম্পংয়েই একটি নার্সিং হোমে এক চিকিৎসককে দেখান। ২৫ তারিখ পর্যন্ত উপসর্গ না কমায় ওই চিকিৎসক যক্ষ্মা পরীক্ষা করাতে বলেন।

আরও পড়ুন: দেশে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে প্রায় ১৪০০, মৃত্যু ৩৫ জনের

ওই দিনই মহিলা শিলিগুড়ির ৪১ নম্বর ওয়ার্ডের জ্যোতিনগরে রামকৃষ্ণ সরণিতে এক আত্মীয়ের বাড়িতে ওঠেন।স্থানীয় একটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে যক্ষ্মা পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। কিন্তু শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। তার পর ওই দিনই উত্তরবঙ্গ মেডিক্যালে ভর্তি হন। নাইসেডে নমুনা পরীক্ষার পর তাঁর কোভিড-১৯ পজিটিভ রিপোর্ট আসে। ৩০ মার্চ তাঁর মৃত্যু হয়। এ বার তাঁর আত্মীয় পরিজনদের সংক্রমণ প্রায় নিশ্চিত হওয়ায় উদ্বেগ বাড়ল রাজ্য প্রশাসনের।

অভূতপূর্ব পরিস্থিতি স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী শেয়ার করুন আমাদের ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিয়ো আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, feedback@abpdigital.in ঠিকানায় কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে

আরও পড়ুন

Advertisement