Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৩ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

বিজেপি সাংসদদের পক্ষে সরব ধনখড়, ক্ষুব্ধ তৃণমূল

চলতি সপ্তাহে আলাদা আলাদা অভিযোগে বিজেপির সাংসদদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করেছিল রাজ্য পুলিশ।

১৮ এপ্রিল ২০২০ ০১:৩৪
Save
Something isn't right! Please refresh.
—ফাইল চিত্র।

—ফাইল চিত্র।

Popup Close

করোনা পরিস্থিতির আবহেও রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ক্রমাগত খোঁচা দেওয়ার কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। শুক্রবার রাজ্য থেকে নির্বাচিত চার বিজেপি সাংসদের পক্ষ নিয়ে মুখ খুলেছেন তিনি। তাঁর অভিযোগ, রাজ্যের পুলিশ ও প্রশাসন রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে বিজেপি সাংসদদের কাজে বাধা দিচ্ছে। শুধু তাই নয়, বিষয়টি লোকসভার স্পিকারের নজরেও এনেছেন রাজ্যপাল। তবে রাজ্যপালের বিরুদ্ধে সংকটের সময় রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছে শাসকদল তৃণমূল।

চলতি সপ্তাহে আলাদা আলাদা অভিযোগে বিজেপির সাংসদদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করেছিল রাজ্য পুলিশ। এদিন ট্যুইট বার্তায় তার উল্লেখ করে রাজ্যপাল বলেছেন, ‘‘রাজনৈতিক কারণেই এই সাংসদদের ক্ষেত্রে অতিসক্রিয়তা দেখিয়েছে পুলিশ ও প্রশাসন। এটা উদ্বেগজনক।’’ রাজ্যপাল জানিয়েছেন, গুরুতর এই অভিযোগ খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। রাজ্যপালের এই মন্তব্যের জবাবে লোকসভায় তৃণমূলের সংসদীয় দলের নেতা সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘‘বিজেপি রাজনৈতিক আন্দোলন করতে পারে। কিন্তু রাজ্যপাল বিজেপির মুখপাত্রের কাজ করছেন। এটা দুর্ভাগ্যের।’’ তাঁর কথায়, ‘‘এই কঠিন পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী দেশের সব মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে কথা বলছেন। সকলে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করছেন। সেখানে একমাত্র বিচ্ছিন্ন সুর আসছে পশ্চিমবঙ্গের রাজভবন থেকে। রাজ্যপাল একটি দলের সাংসদদের হযে লোকসভার স্পিকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করতেই পারেন। তৃণমূলের সাংসদেরাও স্পিকারের কাছে তাঁর সম্পর্কে স্মারকপত্র দিতে পারেন।’’

Advertisement

(অভূতপূর্ব পরিস্থিতি। স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিয়ো আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, feedback@abpdigital.in ঠিকানায়। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।)



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement