Advertisement
০৫ মার্চ ২০২৪
Mamata Banerjee

বাইরের কাউকে ভয় পাবেন না: মমতা 

রাজনৈতিক মহলের ধারণা, বিধানসভা ভোটকে সামনে রেখে বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা বিজেপি নেতাদের বাংলায় যে তৎপরতা চলছে, তাকেও নিশানা করেছেন মমতা।

উদ্বোধন: পোস্তা এলাকার একটি জগদ্ধাত্রী পুজোয় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার। ছবি: সুদীপ্ত ভৌমিক

উদ্বোধন: পোস্তা এলাকার একটি জগদ্ধাত্রী পুজোয় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার। ছবি: সুদীপ্ত ভৌমিক

নিজস্ব সংবাদদাতা 
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৯ নভেম্বর ২০২০ ০৪:৪৮
Share: Save:

এ রাজ্যের মাটিতে বাইরের কারও ‘হুমকি’তে ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই বলে পোস্তার ব্যবসায়ীদের আশ্বস্ত করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। জগদ্ধাত্রী পুজোর উদ্বোধনে এসে বুধবার তিনি বলেন, ‘‘এখানে একটি জমি নিয়ে আপনাদের সমস্যা আছে। ভোটের আগে বাইরের কেউ কেউ ভয় দেখাচ্ছে। ভয় পাবেন না! রাজ্য সরকার আইনি পথেই আপনাদের পাশে থাকবে।’’ এই সমস্যার পিছনে ‘রাজনৈতিক উদ্দেশ্য’ আছে বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি।

রাজনৈতিক মহলের ধারণা, বিধানসভা ভোটকে সামনে রেখে বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা বিজেপি নেতাদের বাংলায় যে তৎপরতা চলছে, তাকেও নিশানা করেছেন মমতা। ‘বাইরের কারও হুমকি’র কথা উল্লেখ করে মুখ্যমন্ত্রী তাঁদের উদ্দেশেও বার্তা দিয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে। এ দিনই বিজেপির এই নির্বাচনী প্রস্তুতিকে বিঁধে তৃণমূল সাংসদ সুখেন্দুশেখর রায় বলেন, ‘‘বাংলাকে নিশানা করে বহিরাগতেরা ব্রিগেড তৈরি করছে। ‘টার্গেট’ করতে হলে চিনকে করুক, পাকিস্তানকে করুক! বাংলাকে কেন?" দলের তরফে তাঁর হুঁশিয়ারি, ‘‘এখানে এসে দাঙ্গা ছড়ানো বা বিভাজন তৈরির চেষ্টা হলে তৃণমূল সর্বশক্তি দিয়ে রুখবে।’’

পোস্তার একটি জমি নিয়ে ব্যবসায়ীদের একাংশ দীর্ঘদিন ধরেই সমস্যায় রয়েছেন। রাজ্য প্রশাসনের কাছে এই নিয়ে দরবারও করেছেন তাঁরা। সেই প্রসঙ্গ টেনে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘‘এই নিয়ে চিন্তার কোনও কারণ নেই। আইনশৃঙ্খলা রাজ্যের বিষয়। বাইরে থেকে গুন্ডা এনে জুলুম করলে পুলিশ দেখবে। সরকার আপনাদের পাশে আছে।’’

অনুষ্ঠানে এ দিন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও পুলিশ-কর্তাদের উপস্থিতিতে জমির প্রসঙ্গ তুলে প্রয়োজনে ব্যবসায়ীদের আলোচনায় বসার কথাও বলেন মুখ্যমন্ত্রী।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE