Advertisement
২৯ নভেম্বর ২০২২
haridebpur

দশমীতে অয়নকে বান্ধবীর বাড়িতে পৌঁছে দেন, রাতেও ছিলেন বাড়ির সামনে, কী বলছেন অয়নের বন্ধু

অয়ন তাঁর বন্ধু রাজুকে বান্ধবীর বাড়ির সামনে রাস্তায় দাঁড় করিয়ে রেখেছিলেন। বলেছিলেন, বান্ধবীর বাবা ফিরলেই যেন দ্রুত তা অয়নকে জানান। একাধিক বার তাঁদের মধ্যে ফোনে কথা হয়।

রাত তিনটের পর শেষ বার অয়নের সঙ্গে ফোনে কথা হয় রাজুর।

রাত তিনটের পর শেষ বার অয়নের সঙ্গে ফোনে কথা হয় রাজুর। ফাইল ছবি।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৭ অক্টোবর ২০২২ ২২:২২
Share: Save:

হরিদেবপুরের অয়ন মণ্ডলের রহস্যমৃত্যুর ঘটনায় এ বার সামনে এলেন অয়নের এক বন্ধু। আনন্দবাজার অনলাইনের কাছে তাঁর দাবি, দশমীর দিন গভীর রাত পর্যন্ত তিনি অয়নের সঙ্গেই ছিলেন। বার বার ফোনে দু’জনের কথা হচ্ছিল।

Advertisement

হরিদেবপুরে অয়ন মণ্ডলের রহস্যমৃত্যুর ঘটনায় উত্তেজনা ক্রমেই বাড়ছে। দশমীর রাতে ‘বান্ধবীর বাড়ি থেকে আসছি’ বলে বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান অয়ন। তার পর থেকে তাঁর খোঁজ নেই। শুক্রবার তাঁর মৃতদেহ উদ্ধার হয়। কিন্তু দশমীর দিন বাড়ি থেকে বেরোনোর পর কী হয়েছিল, তা এখনও অজানা। এই প্রেক্ষিতেই সামনে এসেছেন সে দিন অয়নের সঙ্গে থাকা এক বন্ধু রাজু। দশমীর দিন গভীর রাত পর্যন্ত অয়নের সঙ্গেই ছিলেন তিনি।

রাজুর দাবি, দশমীর দিন রাত ৯টা-সাড়ে ৯টা নাগাদ তিনি অয়নের সঙ্গে তাঁর বান্ধবীর নতুনপল্লীর বাড়িতে যান। কিন্তু রাজুকে বাড়িতে ঢুকতে দেননি অয়ন। তাঁকে বাইরে দাঁড় করিয়ে রেখে ভেতরে ঢোকেন অয়ন। বান্ধবীর বাবা ওই পথে এলেই যেন তাঁকে জানানো হয়, তা-ও বলে যান বন্ধু রাজুকে। রাজুর দাবি, রাত সাড়ে ১১টা নাগাদ অয়নের বান্ধবীর বাবাকে বাড়ি ফিরতে দেখে তিনি অয়নকে তা ফোন করে জানান। অয়নকে বেরিয়ে আসতে বললেও তিনি বেরোননি। অয়ন রাজুকে জানান, বেরোনোর মতো পরিস্থিতি নেই। বান্ধবীর বাবার হাতে ধরা পড়া থেকে বাঁচতে বান্ধবীর বাড়িরই ছাদে অয়ন লুকিয়ে ছিলেন বলে দাবি রাজুর। অয়ন তাঁকে জানান, রাত ২টো নাগাদ বান্ধবীর বাবা ঘুমিয়ে পড়লে তিনি বাড়ি থেকে বেরোবেন। কিন্তু রাত দেড়টা নাগাদ আবার রাজুর ফোন বাজে। ও পারে অয়ন কাঁদতে কাঁদতে বলেন, তাঁকে মারধর করা হয়েছে। তাঁর বুকে ব্যথা হচ্ছে। কিন্তু অয়ন এর বেশি কিছুই বলতে পারেননি বলে রাজুর দাবি। রাজুর আরও দাবি, মারধরের কথা শুনে তিনি অয়নকে বলেছিলেন, লোকজন নিয়ে তিনি বান্ধবীর বাড়িতে ঢুকবেন কি না। কিন্তু অয়নই তাঁকে বারণ করেন। রাত ৩টে ৩ মিনিটে আবার রাজুর ফোন বেজে ওঠে। রাজুর দাবি, অয়ন তাঁকে জানান, পাড়ায় কিছু ঝামেলা হচ্ছে। রাজু যেন সেই ঝামেলায় জড়িয়ে না পড়েন। সেই শেষ বার অয়নের গলার আওয়াজ শুনেছিলেন রাজু। তার পর থেকেই আর অয়নের খোঁজ মেলেনি। শুক্রবার মগরাহাটে তাঁর মৃতদেহ উদ্ধার হয়।

রাজু এবং অয়নের কল হিস্ট্রি।

রাজু এবং অয়নের কল হিস্ট্রি।

রাজুর বক্তব্য থেকে একটা ব্যাপার পরিষ্কার, দশমীর রাতে নিজে বান্ধবীর বাড়িতে ঢুকে গেলেও বন্ধু রাজুকে বাইরে নজর রাখার জন্য দাঁড় করিয়ে গিয়েছিলেন অয়ন। কিন্তু রাত সাড়ে ৯টা থেকে রাত ৩টে ৩মিনিট— নতুনপল্লিতে অয়নের বান্ধবীর বাড়িতে ঠিক কী হয়েছিল, তা এখনও অজানা।

Advertisement

এ দিকে ঘটনায় ক্ষোভে ফুঁসছে হরিদেবপুর। অয়নের বান্ধবীর বাড়িতে ভাঙচুর চালায় উত্তেজিত জনতা। পুলিশ খুনের মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে। গ্রেফতার হয়েছেন অয়নের বান্ধবী, তাঁর মা ও ভাই।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.