Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৪ জুলাই ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

সর্বত্র বিধি যেন একই হয়, চায় আইএমএ

এক যাত্রায়, আরও নির্দিষ্ট করে বললে একই পেশায় দু’রকম নিয়ম চলবে না বলে দাবি জানাল চিকিৎসক সংগঠন ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন বা আইএমএ। তাদে

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ০৩ এপ্রিল ২০১৭ ০৩:৫৭
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

এক যাত্রায়, আরও নির্দিষ্ট করে বললে একই পেশায় দু’রকম নিয়ম চলবে না বলে দাবি জানাল চিকিৎসক সংগঠন ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন বা আইএমএ। তাদের কেন্দ্রীয় শাখার আশঙ্কা, রাজ্য বিধানসভায় সদ্য পাশ হওয়া স্বাস্থ্য বিল আইনে পরিণত হলে সরকারি ও বেসরকারি চিকিৎসকদের ক্ষেত্রে দু’ধরনের নিয়ম কার্যকর হবে। তাদের দাবি, রাজ্যে সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালের চিকিৎসকদের নিয়মে বাঁধার ক্ষেত্রে পার্থক্য রাখা যাবে না।

আইএমএ-র কেন্দ্রীয় শাখার বক্তব্য, চিকিৎসকেরা অপরাধী নন। তাই সামান্য কারণে তাঁদের জেলে ঢোকানো যাবে না। শনি ও রবিবার দিল্লিতে আইএমএ-র কর্মসমিতির বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গের স্বাস্থ্য বিল নিয়ে অভিযোগ ওঠে। বলা হয়, ওই স্বাস্থ্য বিলে চিকিৎসক-স্বার্থ বিঘ্নিত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। বিলের কিছু অংশ সংশোধনের জন্য তারা মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দেবে। ১৫-১৬ এপ্রিল কেন্দ্রীয় আইএমএ-র সভাপতি কে কে অগ্রবাল কলকাতায় থাকবেন। তখন তাঁরা মুখ্যমন্ত্রীর দেখা করতে চান।

অগ্রবাল রবিবার বলেন, ‘‘আমরা চাই, বেসরকারি ও সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসকদের সমদৃষ্টিতে দেখুক রাজ্য সরকার। একই নিয়মে বাঁধা হোক তাঁদের।’’ তাঁরা চান, চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ উঠলে সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালের ডাক্তারদের একই ভাবে জবাবদিহি করার ব্যবস্থা চালু হোক। চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে একাধিক সংস্থা যাতে তদন্ত করতে না-পারে, সেই বন্দোবস্ত করা হোক।

Advertisement

রাজ্যের এক স্বাস্থ্যকর্তা জানান, চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে ওঠা যাবতীয় অভিযোগেরই তদন্ত করবে মেডিক্যাল কাউন্সিল। মুখ্যমন্ত্রীও বারবার চিকিৎসকদের অভয় দিয়েছেন, কোনও সরকারি হাসপাতালের বিরুদ্ধে অভিযোগ এলে আগে তা যথাযথ ভাবে খতিয়ে দেখা হবে। তার পরে নেওয়া হবে ব্যবস্থা। তা সত্ত্বেও আইএমএ-র কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বিষয়টি নিয়ে কেন যে এমন অনড় মনোভাব দেখাচ্ছেন, তা বুঝতে পারছেন না রাজ্যের স্বাস্থ্যকর্তারা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement