×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৩ মে ২০২১ ই-পেপার

কালীপুজোয় গভীর রাত পর্যন্ত খোলা থাকবে দক্ষিণেশ্বর মন্দির

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৪ নভেম্বর ২০২০ ০৮:৫৪
সারাদিন ধরে খোলা থাকলেও মন্দির চত্বরে ভিড় করতে বা বেশি ক্ষণ থাকতে পারবেন না ভক্তেরা। —নিজস্ব চিত্র।

সারাদিন ধরে খোলা থাকলেও মন্দির চত্বরে ভিড় করতে বা বেশি ক্ষণ থাকতে পারবেন না ভক্তেরা। —নিজস্ব চিত্র।

করোনা আবহে কালীপুজোয় দর্শণার্থীদের জন্য আরও বেশি সময় ধরে মন্দির খোলা থাকবে। মন্দির কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, শনিবার সকাল ৭টা থেকে রাত সাড়ে ৩টে পর্যন্ত দক্ষিণেশ্বর খোলা রাখা হবে। সেই সঙ্গে এই প্রথম অনলাইনেও পুজো দেখা সুযোগ থাকবে।

লকডাউনের পর মন্দির খুললেও এই প্রথম কালীপুজো উপলক্ষে মন্দির খোলা রাখার সময়সীমা বাড়ানো হল। এর আগে মন্দির স্বল্প সময়ের জন্য খোলার পর তা বন্ধ রাখা হত। তবে প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনেই দর্শণার্থীদের মন্দিরে প্রবেশ করতে হবে বলে জানিয়েছেন মন্দির কর্তৃপক্ষ। সেই সঙ্গে এই প্রথম পুজোর সরাসরি সম্প্রচার করা হবে।

দক্ষিণেশ্বর মন্দিরের মুখপাত্র কুশল চৌধুরী জানিয়েছেন, অনলাইনেও কালীপুজোর অঞ্জলি দিতে পারবেন ভক্তেরা। তা ছাড়া, দর্শণার্থীদের সুবিধায় সেই সম্প্রচার বড় স্ক্রিনেও দেখানো হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। কুশলবাবুর কথায়, ‘‘কালীপুজোর দিনে বহু মহিলাই অঞ্জলি সেরে তার পর উপবাস ভঙ্গ করেন। সে জন্য এ বার ভার্চুয়াল পুজোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। এ ভাবে ভার্চুয়াল পুজো আগে কখনও করা হয়নি।’’

Advertisement

সময়সীমা বাড়ানো হলেও মন্দির প্রবেশের জন্য দর্শণার্থীদের যাবতীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে বলে জানিয়েছেন কুশলবাবু। মন্দিরের ভিতরে মাস্ক পরা এবং স্যানিটাইজারের ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। সেই সঙ্গে শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে। সারাদিন ধরে খোলা থাকলেও মন্দির চত্বরে ভিড় করতে বা বেশি ক্ষণ থাকতে পারবেন না ভক্তেরা। মন্দিরের ঘাটে এবং পঞ্চবটী বাগানেও জমায়েত করা যাবে না। পুজোর জন্য মন্দিরে কোনও ফুল নিয়ে ঢোকা যাবে না বলেও নিয়ম করা হয়েছে। কোভিডের সংক্রমণে এড়াতে চলতি বছর পুজোর ভোগ বিতরণও বন্ধ রেখেছেন দক্ষিণেশ্বর মন্দির কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন: কালী-কথা

আরও পড়ুন: শহরে পাশ করবে পুলিশ? পরীক্ষা শুরু কয়েক ঘণ্টায়

Advertisement