Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৬ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

অনলাইনে প্রতারণা, টাকা ফেরত

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৫ মে ২০২০ ০৫:০৫
প্রতীকী চিত্র

প্রতীকী চিত্র

লকডাউনের সময়ে বহুল জনপ্রিয় সংস্থার অ্যাপের মাধ্যমে বাবা-মায়ের কাছে জরুরি জিনিস পাঠানোর বরাত দিয়েছিলেন ভবানীপুরের বাসিন্দা এক মহিলা। তার কয়েকটি জিনিস না-মেলায় সংস্থার কাস্টমার কেয়ারের নম্বর ইন্টারনেট থেকে নিয়ে যোগাযোগ করেছিলেন তিনি। এর পরেই টাকা ফেরতের নাম করে ওই মহিলার থেকে প্রায় ২ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেয় ‘জামতাড়া গ্যাং’-এর জালিয়াতেরা।

পুলিশ জানিয়েছে, এ মাসের শুরুর ওই ঘটনার তদন্তে নেমে গত সপ্তাহে তদন্তকারীরা প্রায় ৯২ হাজার টাকা ফেরত পেতে সাহায্য করেছেন মহিলাকে। একটি ওয়ালেটের মাধ্যমে ওই টাকা দিয়ে অনলাইনে সোনা কেনে ওই জালিয়াতেরা। সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করে তদন্তকারীরা ডেলিভারি আটকে দেন। পরে সংস্থা থেকে টাকা ফিরিয়ে দেওয়া হয় মহিলার অ্যাকাউন্টে। তবে প্রতারকদের চিহ্নিত করা সম্ভব হয়নি বলে দাবি পুলিশের। ভুয়ো নথি দিয়ে তারা বিভিন্ন ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খুলেছিল। সেগুলির সঙ্গে যুক্ত মোবাইল নম্বরের নথিও ভুয়ো বলে দাবি পুলিশের।

লকডাউনের সুযোগ নিয়ে বিভিন্ন সংস্থার ভুয়ো কাস্টমার কেয়ারের নম্বর ইন্টারনেটে দিয়ে প্রতারণা চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এ ক্ষেত্রে ইন্টারনেট থেকে কাস্টমার কেয়ারের নম্বর নিয়ে ফোন করলে মহিলাকে বলা হয়, কিছু পরে যোগাযোগ করা হবে। পরে অন্য নম্বর থেকে ফোন করে মহিলাকে বলা হয়, নির্দিষ্ট পদ্ধতি অনুসরণ করলে টাকা ফেরত পাওয়া যাবে। তার পরেই ক্রেডিট কার্ড ও ওয়ালেট অ্যাকাউন্ট থেকে দু’লক্ষ টাকা তুলে নেয় জালিয়াতেরা। ভবানীপুর থানা ও লালবাজার সাইবার ক্রাইমে অভিযোগ দায়ের করেন মহিলা।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement