Advertisement
২১ জুন ২০২৪
Victoria Memorial

ভিক্টোরিয়া, জাদুঘর, সায়েন্স সিটি বন্ধ আপাতত

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের মতোই আজ থেকে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে সায়েন্স সিটি, ভারতীয় জাদুঘর এবং বিড়লা ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড টেকনোলজিক্যাল মিউজ়িয়াম।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৫ মার্চ ২০২০ ০২:৫৭
Share: Save:

করোনাভাইরাস নিয়ে সতর্কতায় বন্ধ হচ্ছে ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল সংগ্রহশালা। আজ, রবিবার থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ থাকবে সেটি। শনিবার এমনটাই জানিয়েছেন ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল কর্তৃপক্ষ। ভিক্টোরিয়ার কিউরেটর-সেক্রেটারি জয়ন্ত সেনগুপ্ত বলেন, ‘‘আমরা মিউজ়িয়াম বন্ধের বিষয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রক এবং রাজভবনের অনুমতি চেয়েছিলাম। সেই অনুমতি পাওয়া গিয়েছে।’’ ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল সূত্রের খবর, আপাতত মেমোরিয়ালের বাগান খোলা থাকবে। তবে পরবর্তী পরিস্থিতি বিচার করে সেটিও বন্ধ হতে পারে।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের মতোই আজ থেকে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে সায়েন্স সিটি, ভারতীয় জাদুঘর এবং বিড়লা ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড টেকনোলজিক্যাল মিউজ়িয়াম। ন্যাশনাল কাউন্সিল অব সায়েন্স মিউজ়িয়ামের ডিরেক্টর জেনারেল তথা ভারতীয় জাদুঘরের অতিরিক্ত ভারপ্রাপ্ত অধিকর্তা অরিজিৎ দত্তচৌধুরী এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘‘পরিস্থিতি বিবেচনা করে আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত ভারতীয় জাদুঘর বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।’’ সায়েন্স সিটির অধিকর্তা শুভব্রত চৌধুরীও বলেন, ‘‘৩১ মার্চ পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। তার পরে পরবর্তী পদক্ষেপ করা হবে।’’ সায়েন্স সিটি সূত্রে

জানানো হয়েছে, ইতিমধ্যেই করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সচেতনতামূলক প্রচার চালানো হয়েছে। ভিড় এড়াতে প্রতিটি শোয়ের টিকিট বিক্রির হার কমিয়ে দেওয়া হয়েছিল। শো পিছু ৬০ শতাংশের বেশি টিকিট বিক্রি করা হচ্ছিল না। নির্দিষ্ট সময় অন্তর অ্যালকোহল যুক্ত জীবাণুনাশক দিয়ে চত্বর পরিষ্কার করা হচ্ছিল। এ বার আর কোনও ঝুঁকি না নিয়ে পুরোটাই বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কর্তৃপক্ষ।

তবে আলিপুর চিড়িয়াখানা খোলা থাকবে বলেই জানিয়েছে সেন্ট্রাল জ়ু অথরিটি। সে ক্ষেত্রে বিদেশি পর্যটকদের উপরে বিশেষ নজর রাখছেন আলিপুর চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ। তাঁরা সুস্থ কি না, সেটা খেয়াল রাখাই মূল উদ্দেশ্য। করোনাভাইরাসের কারণে সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হিসেবে এমন করা হচ্ছে বলে জানাচ্ছেন চিড়িয়াখানার অধিকর্তা আশিসকুমার সামন্ত। ভাইরাস প্রতিরোধে কী কী করণীয়, সেই সংক্রান্ত নির্দেশিকা শুক্রবারই জারি করেছে সেন্ট্রাল জ়ু অথরিটি। সেই মতো যে সব কর্মী টিকিট দিচ্ছেন বা পরীক্ষা করছেন, তাঁদের মাস্ক ও হাতের গ্লাভস দেওয়া হয়েছে। নির্দিষ্ট সময় অন্তর পশুদের খাঁচার বাইরে এবং চিড়িয়াখানার গেটের বাইরে জীবাণুনাশক স্প্রে করা হচ্ছে বলে চিড়িয়াখানা সূত্রের খবর। অধিকর্তার কথায়, ‘‘এখনও পর্যন্ত চিড়িয়াখানা বন্ধ করার নির্দেশ আসেনি। তাই খোলাই থাকছে।’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE