×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৪ মার্চ ২০২১ ই-পেপার

একই দিনে তৃণমূল, বিজেপি-র বাইক মিছিলে সরগরম মেদিনীপুর

নিজস্ব সংবাদদাতা
মেদিনীপুর ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ২৩:৪১
তৃণমূল ও বিজেপি-র বাইক মিছিল।

তৃণমূল ও বিজেপি-র বাইক মিছিল।
নিজস্ব চিত্র

এক দিকে ‘পবিত্র যাত্রা’ নামে তৃণমূলের মোটর বাইক মিছিল, অন্য দিকে সন্ত্রাস ও কাটমানির বিরুদ্ধে বিজেপি-র ‘প্রতিবাদী বাইক মিছিল’। রবিবার দু’দলের কর্মসূচিতে সরগরম হয়ে রইল মেদিনীপুর।

রবিবার সারা দিনে মেদিনীপুর শহর ও সদর ব্লক এলাকায় দুটি পৃথক বাইক মিছিল হয়। ‘দিদির দূত’ স্লোগান নিয়ে তৃণমূলের বাইক মিছিল মেদিনীপুর শহর পরিক্রমা করে। সঙ্গে চলতে থাকে ‘খেলা হবে’ গান। তোলা হয় ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়’ স্লোগান। মিছিলে নেতৃত্ব দেন শহর সভাপতি বিশ্বনাথ পাণ্ডব, যুব জেলা সভাপতি প্রসেনজিৎ চক্রবর্তী, যুব সহ-সভাপতি নির্মাল্য চক্রবর্তী-সহ অন্যান্য নেতারা। পরে গাঁধী মোড়ে একটি পথসভাও হয়।

অন্য দিকে জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের আয়োজনে খড়্গপুর শহরে ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়’ কর্মসূচি উদ্বোধন করা হয়। সেই অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন জেলা সভাপতি অজিত মাইতি, বিধায়ক প্রদীপ সরকার, শিউলি সাহা-সহ অন্যান্য নেতারা। অজিত মাইতি বলেন, ‘‘বিজেপি সন্ত্রাস সৃষ্টি করে বাংলা দখলের স্বপ্ন দেখছে। মানুষ বাংলার মেয়েকে তাঁদের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চান। বহিরাগতরা এসে বাংলার সংস্কৃতিকে নষ্ট করতে চাইলে তা করতে দেবেন না বাংলার মানুষ।’’ খড়্গপুর গ্রামীন বিধানসভার হাতিহল্কা এলাকায় একটি সভায় হাজির ছিলেন হুমায়ূন কবীর, বিধায়ক দীনেন রায়। মেদিনীপুর শহরে ফেডারেশন হলে মহিলা কর্মী সম্মেলনে হাজির ছিলেন হুমায়ুন কবীর ছাড়াও মহিলা নেত্রী মৌ রায়। হুমায়ুন কবীর বলেন, চাকরি থেকে অবসর নেওয়ার পর তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করেছেন। এই জেলায় পুলিশ সুপার হিসেবে কাজ না করলেও মাওবাদী দমনে গড়বেতা ২ ব্লকে কেন্দ্রীয় বাহিনীর অভিযানের সময় নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। মাওবাদীদের বিরুদ্ধে গুলির লড়াইয়ে অংশ নিয়েছিলেন। তা ছাড়া বেশ কিছু জেলায় কাজ করেছেন। এখন ‘দিদির দূত’ হয়ে পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায় এসেছেন। কোথায় কী সমস্যা রয়েছে তা জানতেই এসেছেন তিনি। কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করে সেই সব জানার চেষ্টা করছেন।

Advertisement

অন্য দিকে মেদিনীপুর বিধানসভার গ্রামীন এলাকায় বাইক মিছিল করল বিজেপি। সেই কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন জেলা সভাপতি শমিত কুমার দাশ, জেলা সাধারণ সম্পাদক ড. শংকর কুমার গুছাইত, সহ-সভাপতি শুভজিৎ রায়, অরূপ দাস, মন্ডল সভাপতি সুজয় দাস-সহ অন্যান্য নেতৃত্ববৃন্দ। শমিত দাশ বলেন, ‘‘যে ভাবে সন্ত্রাস সৃষ্টি করছে তৃণমূল তার থেকে বাংলাকে মুক্ত করতেই হবে। সন্ত্রাসের প্রতিবাদে রবিবারের বাইক মিছিলের আয়োজন।’’



Tags:

Advertisement