×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২০ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

বন্‌ধ সমর্থনে ক্রিকেট খেলে রাস্তা অবরোধ মেদিনীপুর শহরে

নিজস্ব সংবাদদাতা
মেদিনীপুর২৮ নভেম্বর ২০২০ ০২:৩৪
রাস্তাতে ক্রিকেট মেদিনীপুরে। নিজস্ব চিত্র।

রাস্তাতে ক্রিকেট মেদিনীপুরে। নিজস্ব চিত্র।

বামেদের ডাকা সাধারণ ধর্মঘটে মিশ্র সাড়া পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায়। ধর্মঘটের সমর্থনে দফায় দফায় সকাল থেকে মিছিল করে ধর্মঘটকারীরা। সকাল থেকেই জেলার বিভিন্ন স্টেশনে শুরু হয় রেল অবরোধ। মেদিনীপুর স্টেশনের সামনে রেল লাইনে দাঁড়িয়ে অবরোধ করে। রেল পুলিশ গিয়ে সেখান থেকে হঠিয়ে দেয় ধর্মঘটীদের। বেলদাতেও ধর্মঘট সমর্থনকারীদের সঙ্গে ধ্বস্তাধ্বস্তি বাধে পুলিশের। মেদিনীপুর শহরে কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের অফিসগুলির সামনে দলীয় পতাকা নিয়ে বন্‌ধ পালন করে বামেরা।

যদিও বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই পরিবহণ ব্যবস্থা সচল রাখতে সচেষ্ট ছিল জেলা প্রশাসন। বেসরকারি বাস রাস্তায় তেমন না নামলেও সরকারি বাস নেমেছে। তবে যাত্রীর সংখ্যা ছিল অনেক কম। সেই সব বাসগুলিকে আটকানোর চেষ্টা করে ধর্মঘটকারীরা। পরে পুলিশ সেই সব বাস চালানোর ব্যবস্থা করে। ধর্মঘটকারীদের থেকে বাসগুলিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য মহিলা পুলিশ দিয়ে ব্যারিকেট করে দেওয়ার ছবিও দেখা যায় শহরের বিদ্যাসাগর মোড় এলাকায়। মেদিনীপুর শহরে বিদ্যাসাগর স্ট্যাচু মোড়ে এবং কালেক্টরেট মোড়ে ধর্মঘটকারীরা রাস্তার উপরে ক্রিকেটও খেলেছেন। পরে কোতোয়ালি পুলিশ তাঁদের হঠিয়ে দেয়।

বৃহস্পতিবার জেলা শাসকের দফতরের প্রবেশ পথেও বিক্ষোভ দেখায় বামেরা। বড় দোকানগুলি খোলা না হলেও বাজার এবং ছোট দোকান ছিল খোলা। ধর্মঘটকারীদের সূত্রে জানা গিয়েছে, বিকেলে মেদিনীপুর শহরে মিছিল করা হবে। জেলার চন্দ্রকোনা, গড়বেতা, ঘাটাল, দাসপুর, খড়গপুর, বেলদা, দাঁতন-সহ বিভিন্ন এলাকায় ধর্মঘটের মিশ্র প্রভাব পড়েছে। সিপিএমের রাজ্য কমিটির সদস্য তাপস সিনহা বলেছেন, ‘‘জেলায় কয়েকটি জায়গায় বিক্ষুব্ধ ঘটনার খবর এসেছে। ধর্মঘটে সাড়া মিলেছে। জেলায় এখনও পর্যন্ত প্রায় ৫০ কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।’’

Advertisement
Advertisement