Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

Offline Exam: অফলাইন পরীক্ষা: অটল রবীন্দ্রভারতী ও যাদবপুর

আসন্ন সিমেস্টার পরীক্ষা অফলাইনে অর্থাৎ ক্লাসঘরে নেওয়ার সিদ্ধান্তে অটল থাকলেন রবীন্দ্রভারতী এবং যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৭ মে ২০২২ ০৫:২৩
Save
Something isn't right! Please refresh.
ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

Popup Close

উচ্চশিক্ষা দফতর দায়িত্ব ছেড়েছে বিশ্ববিদ্যালয়গুলির হাতেই। এই অবস্থায় আসন্ন সিমেস্টার পরীক্ষা অফলাইনে অর্থাৎ ক্লাসঘরে নেওয়ার সিদ্ধান্তে অটল থাকলেন রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষও সোমবার আরও এক বার জানিয়ে দিয়েছেন, তাঁরা অফলাইনে পরীক্ষার সিদ্ধান্ত থেকে কোনও ভাবেই সরবেন না। কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে ২০ মে আবার বৈঠকে বসবে বলে শিক্ষা সূত্রের খবর।

প্রথমে অফলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েও ‘চাপের মুখে’ কল্যাণী এবং বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় তা পরিবর্তন করেছে। ঠিক হয়েছে, অনলাইনে পরীক্ষা নেবে ওই দুই বিশ্ববিদ্যালয়। কিন্তু রবীন্দ্রভারতীর উপাচার্য সব্যসাচী বসু রায়চৌধুরী জানান, সোমবার কর্মসমিতির বিশেষ বৈঠকে ছাত্রস্বার্থে সর্বসম্মত ভাবে অফলাইনে পরীক্ষার সিদ্ধান্ত বহাল রাখা হয়েছে। ওই বৈঠকের আগে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি (আরবুটা) উপাচার্যকে জানিয়েছিল, অনলাইনে পরীক্ষা নিলে পরীক্ষা পর্ব থেকে সরে দাঁড়াবেন শিক্ষকেরা।
যাদবপুরে ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের পরীক্ষা প্রায় শেষের পথে। বিজ্ঞান বিভাগের পরীক্ষা এখনও চলছে। কলা বিভাগের পরীক্ষা আজ, মঙ্গলবার শুরু হচ্ছে। যাদবপুরের উপাচার্য সুরঞ্জন দাস এ দিন বলেন, ‘‘বোর্ডের সিদ্ধান্ত মেনেই বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা অফলাইনে নেওয়া হচ্ছে এবং হবে। ছাত্রস্বার্থ বিঘ্নিত হয়, এমন কোনও পদক্ষেপ করছে না বিশ্ববিদ্যালয়।’’ যাদবপুরের শিক্ষক সমিতি (জুটা)-র সাধারণ সম্পাদক পার্থপ্রতিম রায় জানান, পরীক্ষা অনলাইনে নেওয়া হলে তাঁরা পরীক্ষা পদ্ধতির মধ্যে থাকবেন না। এ দিন বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মসমিতির বৈঠকে রাজ্য সরকারের পাঠানো পরীক্ষা পদ্ধতি সংক্রান্ত নির্দেশিকা নিয়ে আলোচনা হয়। অফলাইনে পরীক্ষার সিদ্ধান্তই বহাল রাখা হয় সেখানে।
তৃণমূল ছাত্র পরিষদ (‌‌টিএমসিপি)-এর‌‌ রাজ্য সভাপতি তৃণাঙ্কুর ভট্টাচার্য সম্প্রতি শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুকে অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন। টিএমসিপি ইউনিটের পক্ষ থেকে একই অনুরোধ জানানো হয় বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের। তৃণমূলের কলেজ–বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সংগঠন ওয়েবকুপা-ও চায়, আসন্ন সিমেস্টার পরীক্ষা অনলাইনেই হোক। শিক্ষা মহলের একাংশের মত, এই জোড়া চাপের মুখেই কল্যাণী ও বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় অফলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েও পরে তা বদল করেছে। সারা বাংলা সেভ এডুকেশন কমিটির পক্ষ থেকে এ দিন কল্যাণী ও বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে অনলাইনের বদলে অফলাইনে পরীক্ষার দাবি জানিয়ে চিঠি দেওয়া হয়েছে। তৃণাঙ্কুর এ দিন বলেন, ‘‘যাদবপুর ও রবীন্দ্রভারতীতে পরীক্ষা হয় চেনা পরিবেশে। বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজগুলিতে হোম সেন্টারে চেনা পরিবেশে পরীক্ষা হয়। করোনা পরিস্থিতি কাটিয়ে পরীক্ষার্থীরা যাতে আত্মবিশ্বাস নিয়ে পরীক্ষা দিতে পারে, এই তিন বিশ্ববিদ্যালয় নিশ্চয়ই তা দেখবে।’’
সরকারি কলেজ শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক দেবাশিস সরকারের বক্তব্য, কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অফলাইনে আর কিছু বিশ্ববিদ্যালয়ে অনলাইনে পরীক্ষা হলে তীব্র বৈষম্যের সৃষ্টি হবে। তাই উচ্চশিক্ষা দফতরের তরফে একই পদ্ধতিতে পরীক্ষার বিষয়ে নির্দেশ দেওয়া প্রয়োজন।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement