Advertisement
১৭ জুন ২০২৪
Droupadi Murmu

মঙ্গলে রাষ্ট্রপতি মুর্মুর শান্তিনিকেতন সফর, বিশ্বভারতীর সমাবর্তন ঘিরে সাজ সাজ রব

২০২২ সালের উত্তীর্ণ পড়ুয়াদের জন্য সমাবর্তন অনুষ্ঠান হতে চলেছে বিশ্বভারতীতে। ২৮ মার্চ, মঙ্গলবার আম্রকুঞ্জের জহরবেদিতে রাষ্ট্রপতি এবং রাজ্যপালের উপস্থিতিতে ওই অনুষ্ঠান হবে।

image of President Droupadi Murmu

মঙ্গলবার দুপুর ১২টা নাগাদ শান্তিনিকেতনে নামবে রাষ্ট্রপতির কপ্টার। ছবি: পিটিআই।

নিজস্ব সংবাদদাতা
শান্তিনিকেতন শেষ আপডেট: ২৭ মার্চ ২০২৩ ১৮:১৮
Share: Save:

পশ্চিমবঙ্গে দু’দিনের সফরে এসেছেন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু। রাষ্ট্রপতি হওয়ার পর এই প্রথম বার তিনি কলকাতায় এলেন। সোমবার কলকাতায় একাধিক কর্মসূচি শেষে মঙ্গলবার দুপুর ১২টা নাগাদ রাষ্ট্রপতির শান্তিনিকেতন যাওয়ার কথা। মঙ্গলবার দুপুর ১২টা নাগাদ শান্তিনিকেতনে নামবে রাষ্ট্রপতির কপ্টার। তাঁর সফর ঘিরে শান্তিনিকেতনে সাজ সাজ রব।

সোমবার জোড়াসাঁকো ঠাকুরবাড়ি, বেলুড় মঠ, ইউকো ব্যাঙ্কের ৮০ বছর পূর্তি অনুষ্ঠান-সহ একাধিক অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন রাষ্ট্রপতি। এর পর মঙ্গলবার কলকাতা থেকে বিশেষ নিরাপত্তায় শান্তিনিকেতনের বিনয় ভবন সংলগ্ন কুমিরডাঙার মাঠে এসে পৌঁছবেন রাষ্ট্রপতি। রবীন্দ্র ভবন, কলাভবন ও আশ্রম প্রাঙ্গণ পরিদর্শনের পর দুপুর ৩টেয় আম্রকুঞ্জের জহরবেদিতে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন অনুষ্ঠানে যোগদানের কথা রয়েছে তাঁর। সমাবর্তন অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোসও।

প্রসঙ্গত, গত ৩ বছর বিশ্বভারতী প্রাঙ্গণে সমাবর্তন অনুষ্ঠান হয়নি। ২০২০ সালে করোনা পরিস্থিতির জন্য বন্ধ রাখা হয়েছিল অনুষ্ঠান ৷ ২০২১ সালে কোভিড বিধি মেনে সমাবর্তন অনুষ্ঠান হয়। তবে ভার্চুয়ালি। সেখানে অংশ নিয়েছিলেন বিশ্বভারতীর আচার্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এর পর ২০২২ সালে ছাত্র আন্দোলনের জেরে সমাবর্তন অনুষ্ঠানই করেননি উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী।

এ বারের সমাবর্তনে ২০২১ এবং ২০২২-এ উত্তীর্ণ পড়ুয়াদের ডিগ্রি দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সমাবর্তনের মাত্র দু’দিন আগে জানিয়ে দেওয়া হয় ২০২২ সালে উর্ত্তীর্ণরা সমাবর্তনে যোগ দিতে পারবেন না। এ নিয়ে ক্ষোভ তৈরি হয়। তার পর বিশ্বভারতীর জনসংযোগ আধিকারিক মহুয়া বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন ২০২২ সালের উত্তীর্ণ পড়ুয়াদের জন্য সমাবর্তন অনুষ্ঠান হতে চলেছে বিশ্বভারতীতে। ২৮ মার্চ, মঙ্গলবার আম্রকুঞ্জের জহরবেদিতে রাষ্ট্রপতি এবং রাজ্যপালের উপস্থিতিতে ওই অনুষ্ঠান হবে।

বোলপুরের পুলিশ আধিকারিক নিখিল আগরওয়াল জানান, জোরদার করা হচ্ছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা। দফায় দফায় পুলিশ আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। হেলিপ্যাড ময়দান, আম্রকুঞ্জ, রবীন্দ্র ভবন-সহ শান্তিনিকেতনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হচ্ছে। বীরভূম জেলার পুলিশ সুপার ভাস্কর মুখোপাধ্যায় জানান, প্রোটোকল অনুযায়ী, রাষ্ট্রপতির নিরাপত্তার জন্য যা করণীয় সবই করা হয়েছে। সেজে উঠছে রবীন্দ্র ভবন-সহ শান্তিনিকেতনের একাধিক ঐতিহ্যমণ্ডিত স্থান।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Droupadi Murmu Shantiniketan
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE