×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৬ জানুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

করোনার সময় রোগী দেখে বেতনহীন জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞেরা

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা০৪ নভেম্বর ২০২০ ১৮:৩৬

বুধবার বিক্ষোভ দেখান পড়ুয়ারা। -নিজস্ব চিত্র।

বুধবার বিক্ষোভ দেখান পড়ুয়ারা। -নিজস্ব চিত্র।

করোনার সময় রোগী দেখেও বেতন পাচ্ছেন না জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞেরা। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের অধীনে ‘অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব হাইজিন অ্যান্ড পাবলিক হেল্থ’-এর প্রথম বর্ষের স্নাতকোত্তরের পড়ুয়াদের অভিযোগ, গত চার মাস ধরে তাঁরা বেতন পাচ্ছেন না। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট মহলে জানিয়েও কাজ হয়নি বলে অভিযোগ। বুধবার কলকাতার দফতরে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন তাঁরা।

ওই ডাক্তারদের পাশে দাঁড়িয়েছে চিকিৎসক মহল। ওয়েস্ট বেঙ্গল ডক্টরস ফোরামের তরফে রাজীব পাণ্ডে বলেন, “এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি। করোনার সময় জনস্বাস্থ্য বিষয়ে জুনিয়র ডাক্তাররা কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করছেন। রোগী দেখতে হচ্ছে। স্নাতকোত্তরের ছাত্রছাত্রীদের বেতন অবিলম্বে দিতে হবে।”

আন্দোলনকারী চিকিৎসক দীপঙ্কর জানা বলেন, “এমবিবিএস পাশ করার পর স্নাতকোত্তর স্তরে পড়াশোনার জন্য অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব হাইজিন অ্যান্ড পাবলিক হেল্থ-এ ভর্তি হয়েছি নিট-পিজি পরীক্ষা দিয়ে। জুলাই মাস থেকে ১৯ জন আমরা বেতন পাচ্ছি না। অথচ সব রকমের রোগী দেখতে হচ্ছে আমাদের। করোনার মতো উপসর্গ নিয়েও আসছেন রোগীরা।”

Advertisement

আরও পড়ুন: এগোচ্ছেন ট্রাম্প, শেষ মুহূর্তে বাজিমাত করবেন কে, নজর গোটা বিশ্বের

আন্দোলনকারীদের বক্তব্য, বেতনের বিষয়ে ‘অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব হাইজিন অ্যান্ড পাবলিক হেল্থ’-এর ডিন দেবাশিস দত্তকে জানানো হয়েছে। কিন্তু এখনও পর্যন্ত কোনও কাজ হয়নি। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের অধীনে এই সংস্থা জনস্বাস্থ্য বিষয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। কেন্দ্রই বেতন দিয়ে থাকে। কী কারণে এই জটিলতা তৈরি হয়েছে, সে বিষয়টি এখনও স্পষ্ট নয়। ওয়েস্ট বেঙ্গল ডক্টরস ফোরামের তরফে পুণ্যব্রত গুন বলেন, “ট্রেনিং শুরু হয়েছে চার মাস হয়ে গিয়েছে। বেতন পাচ্ছেন না। কর্তৃপক্ষের কোনও উদ্যোগ নেই। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ওদের বেতন দেওয়া হোক।”

Advertisement