Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৬ অগস্ট ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

শনিবার কলকাতায় শুভেন্দু, নবাগতদের নিয়ে বৈঠক রাজ্য বিজেপি নেতৃত্বের

বিজেপি সূত্রের খবর, বিজেপিতে নবাগতরা কে, কোথায়, কী ভাবে কাজ করবেন, তা ঠিক করা হবে শনিবারের ওই বৈঠকে।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২৫ ডিসেম্বর ২০২০ ১৪:০৯
Save
Something isn't right! Please refresh.
মোদী এবং শুভেন্দু।

মোদী এবং শুভেন্দু।

Popup Close

গত শনিবার বিজেপি-তে পা রেখেছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। এই শনিবার তিনি প্রথম পদার্পণ করবেন রাজ্য বিজেপি-র নির্বাচনী দফতরে। মাঝে দলের হয়ে একাধিক সমাবেশ করলেও শনিবার দুপুরে দক্ষিণ কলকাতার হেস্টিংস মোড়ে রাজ্য বিজেপি-র প্রধান নির্বাচনী দফতরে প্রথমবার আসছেন শুভেন্দু। শুভেন্দু-সহ সম্প্রতি যাঁরা দলে যোগ দিয়েছেন, ওই দফতরে তাঁদের সংবর্ধনা দেওয়ারও পরিকল্পনা রয়েছে রাজ্য বিজেপি-র। তবে বিজেপি সূত্রের খবর, বৈঠকের মূল বিষয় নবাগতরা কে, কোথায়, কী ভাবে কাজ করবেন, তা ঠিক করা। বিজেপি ছাড়াও দলের অন্যান্য শাখা সংগঠনের কোনটায় কারা সক্রিয় হবেন, তা-ও শনিবারের বৈঠকে ঠিক হওয়ার কথা।

রাজ্য বিজেপি সূত্রে খবর, শনিবার বেলা ১২টা নাগাদ দলীয় অফিসে আসবেন শুভেন্দু। তাঁর সঙ্গেই ওইদিন কলকাতায় আসার কথা তাঁর হাত ধরে অমিত শাহের মেদিনীপুরের সভায় বিজেপি-তে যোগ দেওয়া ৯ বিধায়ক, দুর্গাপুর পূর্বের তৃণমূল-ত্যাগী সাংসদ সুনীল মণ্ডল ও আলিপুরদয়ারের প্রাক্তন সাংসদ দশরথ তিরকের। এ ছাড়াও বিভিন্ন দল ছেড়ে যে সব পদাধিকারী ও জনপ্রতিনিধিরা অমিতের সভার দিন বিজেপি-তে গিয়েছিলেন, তাঁদেরও বেলা ১১টার সময়ে হেস্টিংস মোড়ের অফিসে আসতে বলা হয়েছে।

বিজেপি-র চালু রেওয়াজ অনুযায়ী, দলে আগত নতুন সদস্যদের রাজ্য কমিটির তরফে সংবর্ধনা দেওয়া হয়। এর আগে মুকুল রায়, শোভন চট্টোপাধ্যায়কেও এই ধরনের সংবর্ধনা দিয়েছিল রাজ্য বিজেপি। এবার পালা শুভেন্দু-সহ বাকিদের। তবে এর আগে ৬, মুরলিধর সেন লেনের বিজ‌েপি রাজ্য দফতরেই হয়েছে ওই সব সংবর্ধনা। কিন্তু ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনের জন্য সম্প্রতি দলের সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নড্ডার হাতে উদ্বোধন হয়েছে হেস্টিংসে নতুন নির্বাচনী দফতর। সেখানেই হবে শনিবারের বৈঠক ও সংবর্ধনা।

Advertisement

বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, শুভেন্দুর ওই সংবর্ধনা সভায় থাকবেন পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি-র পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয়, রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি মুকুল রায়। সংবর্ধনা সভার পাশাপাশি সেখানে একটি বৈঠকে অংশ নেবেন শুভেন্দু। ৭ জানুয়ারি নন্দীগ্রামে সভা করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। যে কেন্দ্রের বিধায়ক ছিলেন শুভেন্দু। পরের দিন ৮ জানুয়ারি একই জায়গায় বিজেপি-র সমাবেশ হবে বলে বৃহস্পতিবার ঘোষণা করে দিয়েছেন শুভেন্দু। সেই সভার প্রাথমিক প্রস্তুতি নিয়েও আলোচনা হতে পারে শনিবারের বৈঠকে।

আরও পড়ুন: তরুণ প্রজন্মকে আরও কাছে চাই, নির্বাচনের আগে ‘দুয়ারে তারকা’

প্রসঙ্গত, বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার পরেই শুভেন্দুকে দলের উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে অংশ নিতে ডাকা হয়েছিল। সেখানে রাজ্যে বিধানসভা ভোটের প্রস্তুতি নিয়ে আলোচনা করেছিলেন অমিত শাহ। এর পরে পূর্ব বর্ধমানের পূর্বস্থলীতে সমাবেশ এবং বৃহস্পতিবার নিজের শহর কাঁথিতে রোড শো এবং জনসভা করেছেন শুভেন্দু। দু’টি জায়গা থেকেই তৃণমূল ও রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রাজ্যের এই প্রাক্তন মন্ত্রী। কিন্তু ছুটকোছাটকা কথা বললেও এখনও পর্যন্ত সে ভাবে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হননি তিনি। বৃহস্পতিবার কাঁথির সমাবেশ শেষে সেই সংক্রান্ত প্রশ্নের জবাবে শুভেন্দু বলেন, "বিজেপি একটি শৃঙ্খলাপরায়ণ দল। আমি নিজেও শৃঙ্খলা মেনে কাজ করতে ভালবাসি। আমি এই দলে এখনও নতুন। তাই যতক্ষণ না শীর্ষনেতৃত্বের নির্দেশ পাচ্ছি, ততক্ষণ সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলব না।’’ তবে বিজেপি সূত্রের খবর, সেই প্রয়োজনীয় নির্দেশ শুভেন্দু পেয়ে যেতে পারেন শনিবারই।

আরও পড়ুন: অধীরকে জোটের ‘মুখ্যমন্ত্রী মুখ’ করার দাবি, আসরে কংগ্রেসের একাংশ

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement