×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১১ মে ২০২১ ই-পেপার

বাইডেনের আমলে ভারত বৃহত্তর ভূমিকা নিতে চায় আফগানিস্তানে

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি ২৪ মার্চ ২০২১ ০৫:১৯
আফগানিস্তানের বিদেশমন্ত্রী মহম্মদ হানিফ আতমার-এর সঙ্গে বৈঠকে ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর।

আফগানিস্তানের বিদেশমন্ত্রী মহম্মদ হানিফ আতমার-এর সঙ্গে বৈঠকে ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর।
ছবি: পিটিআই।

পাকিস্তান নয়, অদূর ভবিষ্যতে আফগানিস্তানের শান্তি প্রক্রিয়ায় বৃহত্তর ভূমিকা নিতে প্রস্তুত ভারতই। আমেরিকার নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের জমানায় দক্ষিণ-পশ্চিম এশিয়ার রণকৌশলে নেতৃত্ব দেওয়ার যে সুযোগ ধীরে ধীরে তৈরি হচ্ছে, তাকে হাতছাড়া করতে রাজি নয় সাউথ ব্লক। আফগানিস্তানের বিদেশমন্ত্রী মহম্মদ হানিফ আতমার-এর তিন দিনের সফরে এই বার্তাই দিচ্ছে নয়াদিল্লি।

গত কাল অনেক রাত পর্যন্ত চলেছে দু’দেশের বিদেশমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক। বিদেশ মন্ত্রক সূত্রে জানা গিয়েছে, আলোচনা হয়েছে নিরাপত্তাগত সমন্বয়, বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং অবশ্যই কাবুলে শান্তি প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করা নিয়ে। বিদেশ মন্ত্রকের নতুন মুখপাত্র অরিন্দম বাগচী আজ টুইট করে বলেন, ‘ভারত-আফগানিস্তান কৌশলগত অংশীদারি এগিয়ে নিয়ে যেতে উম্মুখ বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর স্বাগত জানিয়েছেন হানিফ আতমরকে। কথা হয়েছে দ্বিপাক্ষিক এবং আঞ্চলিক বিষয়গুলি নিয়ে।’’ টুইট করেছেন আফগানিস্তানের বিদেশমন্ত্রীও। ‘সুন্দর এবং ঐতিহাসিক শহর’ দিল্লিতে এসে তিনি নিরাপত্তা এবং অর্থনীতি এই দু’টি বিষয় নিয়েই চর্চা করছেন বলে জানিয়েছেন। জয়শঙ্কর ছাড়াও তাঁর বৈঠক করার কথা জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভালের সঙ্গে।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরেই আফগানিস্তানের শান্তি প্রক্রিয়া নিয়ে নতুন করে উদ্যম দেখা যাচ্ছে আন্তর্জাতিক স্তরে। তাকে ভেস্তে দিতে তালিবানদের হিংসার ঘটনাও বাড়ছে। শান্তি উদ্যোগের প্রধান ব্যক্তি আবদুল্লা আবদুল্লা গত বছর অক্টোবরে ভারতে ঘুরে গিয়েছেন। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশে শান্তি ফেরানোর জন্য ভারতের নেতৃত্ব আহ্বান করেছেন তিনি। গত মাসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরফ গনির সঙ্গে ভিডিয়ো মাধ্যমে বৈঠক করে অবিলম্বে সংঘর্ষ বিরতির দাবি জানিয়েছেন। বিদেশমন্ত্রী জয়শঙ্কর এবং আমেরিকার প্রতিরক্ষা সচিব লয়েড অস্টিনের গত শনিবারের বৈঠকেও গুরুত্ব পেয়েছে আফগানিস্তান প্রসঙ্গ।

Advertisement
Advertisement