×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১০ মে ২০২১ ই-পেপার

তোয়ালেতে ‘পেঁয়াজ’ রেখে কান্না? নেটাগরিকদের তোপে ক্যাপিটলে হামলার এলিজাবেথ

সংবাদ সংস্থা
ওয়াশিংটন ০৯ জানুয়ারি ২০২১ ১৬:০০
তোয়ালে হাতে এলিজাবেথ। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

তোয়ালে হাতে এলিজাবেথ। ছবি টুইটার থেকে নেওয়া।

ট্রাম্প সমর্থকদের তাণ্ডব চালানোর দিনে ক্যাপিটলে ঢুকতে চাওয়া এক যুবতীর সঙ্গে সাংবাদিকের কথা বলার ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ক্যাপিটল অভিযানে অংশ নেওয়া ওই যুবতীর দাবি নিয়ে ইতিমধ্যেই সন্দেহ প্রকাশ করেছেন নেটাগরিকদের একটি বড় অংশ। ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, ওই মহিলার হাতে থাকা নীল রঙের তোয়ালেতে রয়েছে আধখানা পেঁয়াজের মতো কিছু। সেটিকে ধরে চোখের জল মোছার ভঙ্গিতে চোখের কাছে আনছেন তিনি। মহিলার এই ‘কাজ’ নিয়েও নিজেদের মত জানিয়েছেন নেটাগরিকরা।

ইয়াহু-র সাংবাদিক হান্টার ওয়াকার পোস্ট করেছিলেন সেই ভিডিয়ো। ওই সাংবাদিককে ওই যুবতী জানান, নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে সংঘর্ষে তিনি অসুস্থ। এই বলে কাঁদছিলেন মহিলা। আর তোয়ালেটি নিয়ে চোখ মোছার ভঙ্গি করছিলেন। সাংবাদিককে যুবতী বলেছেন, তাঁর নাম এলিজাবেথ। নক্সভিলে থাকেন তিনি। হান্টারের প্রশ্নের জবাবে এলিজাবেথ জানিয়েছেন, তিনি ক্যাপিটলের ভিতরে ঢোকার চেষ্টা করেছিলেন। এই অভিযানকে ‘বিপ্লব’ বলেও সম্বোধন করেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া এলিজাবেথ।

কিন্তু ওই সব্জি কী কারণে তিনি ব্যবহার করছিলেন, তা নিয়ে নেটাগরিকদের তোপের মুখে পড়তে হয়েছে তাঁকে। ক্যামেরার সামনে কান্নার অভিনয় করতে এলিজাবেথ পেঁয়াজ ঘষেছেন বলে জানিয়েছেন অনেকে। এক অংশের মতে, কাঁদানে গ্যাস, পেপার স্প্রে থেকে বাঁচতে এটি নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। এই ‘পেঁয়াজ তোয়ালের’ ব্যবহার তাঁর অভিযোগকে প্রশ্নের মুখে দাঁড় করিয়েছে। তাঁর কান্নাকে ‘কুমিরের কান্না’ বলতেও পিছপা হননি অনেকেই।

Advertisement

আরও পড়ুন: ক্যাপিটলে তাণ্ডবের আগে পার্টি ট্রাম্পদের, ভিডিয়ো ভাইরাল হতেই বিতর্ক

ট্রাসি ম্যাসেনবার্গ নামের এক টুইটার ব্যবহারকারী নিজেকে এলিজাবেথের তুতো ভাই বলে পরিচয় দিয়েছেন। এলিজাবেথ ‘মেসড’ হয়েছিলেন বলে জানিয়েছেন তিনি। তোয়ালেতে তাঁর হাতে ‘বরফ’ ছিল বলে দাবি ট্রাসির। ক্যাপিটলে হামলার পর সারা বিশ্ব নিন্দা করছে ট্রাম্প সমর্থকদের আচরণকে। কিন্তু এলিজাবেথের ভাষায় তা ‘বিপ্লব’। তাই হাতে যাই থাক, এই অভিযানে লিপ্ত থাকার কথা গর্বের সঙ্গে ঘোষণার জন্যও সমালোচিত হচ্ছেন এলিজাবেথ।


Advertisement