×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৮ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

কৃষ্ণাঙ্গকে গুলি: মামলা থেকে ছাড় পুলিশের

সংবাদ সংস্থা
কেনোশা (উইসকনসিন) ০৭ জানুয়ারি ২০২১ ০২:০৪
কেনোশা কাউন্টির ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি মাইকেল গ্রেভলির রায়ের প্রতিবাদে মিছিল। ছবি রয়টার্স।

কেনোশা কাউন্টির ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি মাইকেল গ্রেভলির রায়ের প্রতিবাদে মিছিল। ছবি রয়টার্স।

কৃষ্ণাঙ্গ তরুণ জেকব ব্লেককে গুলি করে গুরুতর জখম করার ঘটনায় পুলিশ অফিসারের বিরুদ্ধে মামলা করা যাবে না। মঙ্গলবার এই ঘোষণা করেন কেনোশা কাউন্টির ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি মাইকেল গ্রেভলি।

গত বছর ২৩ অগস্ট তাঁর তিন শিশুসন্তানের সামনে ব্লেককে গুলি করেছিলেন শ্বেতাঙ্গ পুলিশ অফিসার রাস্টেন শেস্কি। যার প্রতিবাদে ব্যাপক বিক্ষোভ হয় কেনোশায়। সেই প্রতিবাদ মিছিলে আবার এক শ্বেতাঙ্গ নাবালকের চালানো গুলিতে নিহত হন দুই কৃষ্ণাঙ্গ। আজকের রায়ে হতবাক দেশের মানবাধিকার কর্মীরা। তবে ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নির দাবি, ‘‘কোনও পুলিশ আত্মরক্ষার জন্য গুলি চালাতেই পারেন।’’ তিনি আরও জানান, ৪০ ঘণ্টার ভিডিয়ো ফুটেজ খুঁটিয়ে দেখে এবং কয়েক’শো পাতার পুলিশ রিপোর্ট পড়েই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তাঁরা।

সেই ঘটনার আগে ব্লেকের নামে যৌন হেনস্থার অভিযোগ করেছিলেন এক মহিলা। ঘটনার দিন স্থানীয় থানায় একটি ফোন আসে। এক মহিলা জানান, ব্লেক তাঁকে মারধর করছেন। ফোন পেয়ে ঘটনাস্থলে যান শেস্কি ও আর এক পুলিশ অফিসার। এলাকায় পৌঁছে দেখেন, রাস্তায় দাঁড়িয়ে ঝগড়া করছেন দুই মহিলা। আর ব্লেক একটি গাড়িতে উঠছেন। সেই গাড়িতে তিনটি শিশুও ছিল। মহিলাদের কথা শুনে পুলিশে ধারণা হয়, ব্লেক শিশুদের অপহরণ করে পালাচ্ছেন। পুলিশের দাবি, ব্লেককে আত্মসমর্পণ করতে বললে তিনি গাড়ির ভিতর ঝুঁকে পড়ে কিছু বার করতে যান। পুলিশের ধারণা হয়, তিনি আগ্নেয়াস্ত্র বার করতে যাচ্ছেন। তখন ব্লেকের পিঠ লক্ষ্য করে সাতটি গুলি চালান অফিসার শেস্কি।

Advertisement

পক্ষাঘাতগ্রস্ত হয়ে গিয়েছেন ব্লেক। অক্টোবর পর্যন্ত হাসপাতালে ছিলেন। প্রথমে তাঁকে হাসপাতালের বিছানার সঙ্গে হাতকড়া দিয়ে বেঁধে রাখা হত। পরে যৌন হেনস্থা মামলায় তাঁকে নির্দোষ ঘোষণা করে এলাকায় অশান্তি করার জন্য শুধু দু’বছর প্রোবেশনে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক। তখন হাতকড়ি খোলা হয় ব্লেকের।

Advertisement