Advertisement
০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Rishi Sunak

আগে ঘর, পরে পর! সঙ্কটে অন্য দেশকে অর্থনৈতিক সাহায্য করা বন্ধ রাখতে পারেন ঋষি সুনকও

ব্রিটেন তাদের জাতীয় আয়ের ০.৫ শতাংশ খরচ করত অন্যান্য দেশকে সাহায্য করার জন্য। কোভিড অতিমারির সময়ে ব্যয়সঙ্কোচ করার জন্য এই অনুদান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয় বরিস জনসনের মন্ত্রিসভা।

ঋষি সুনক।

ঋষি সুনক। ফাইল চিত্র।

শেষ আপডেট: ২৯ অক্টোবর ২০২২ ২১:১০
Share: Save:

আরও দু’বছরের জন্য অন্য দেশকে অর্থনৈতিক সাহায্য করা থেকে বিরত থাকতে চলেছে ব্রিটেন। সে দেশের একটি সংবাদমাধ্যমের তরফে এমনই দাবি করা হয়েছে। অর্থনৈতিক সঙ্কটের মোকাবিলায় দেশের নতুন প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনক যে নানাবিধ সংস্কারের পথে হাঁটবেন, তা অবশ্য আগেই জানা গিয়েছিল।

Advertisement

ব্রিটেন তাদের জাতীয় আয়ের ০.৫ শতাংশ খরচ করত অন্যান্য দেশকে সাহায্য করার জন্য। কোভিড অতিমারির সময়ে ব্যয়সঙ্কোচ করার জন্য এই অনুদান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয় বরিস জনসনের মন্ত্রিসভা। বরিস মন্ত্রিসভার তৎকালীন অর্থমন্ত্রী সুনক জানিয়েছিলেন, ২০২৪-২৫ অর্থবর্ষের মধ্যে বিদেশে অনুদান খাতে ব্যয় হওয়া অর্থের অন্তত ০.৭ শতাংশ ফিরিয়ে আনতে হবে।

তবে ওই সংবাদমাধ্যম সূত্রে দাবি করা হয়েছে, ২০২৬-২৭ অর্থবর্ষের পরেও বিদেশে অনুদান দেওয়া বন্ধ রাখতে পারে ব্রিটেন। পরবর্তী সময়ে তা চালু করলেও ভবিষ্যতে অনুদান বাবদ ব্যয়বরাদ্দ আরও কমতে পারে।

প্রসঙ্গত, খাদ্য এবং জ্বালানির দাম বৃদ্ধিতে নাজেহাল ব্রিটেনবাসী। এই পরিস্থিতিতে আগের মন্ত্রিসভার করছাঁটাইয়ের সিদ্ধান্ত স্থগিত রাখতে চলেছে সুনক মন্ত্রিসভা।

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.