• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ব্যাঙ্ক হিসাবে যাত্রা শুরু বন্ধনের

14
সায়েন্স সিটিতে বন্ধনের উদ্বোধনে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। ছবি: পিটিআই।

ভারতীয় ব্যাঙ্কিং শিল্পের আরও একটা নতুন সংযোজন বন্ধন। রবিবার এই ব্যাঙ্কের উদ্বোধন করেন কেম্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। এ দিন থেকেই পূর্ণমাত্রার ব্যাঙ্ক হিসাবে পথ চলা শুরু হল বন্ধনের। একটা মাইক্রোফিন্যান্স সংস্থা থেকে ধীরে ধীরে একটা পূর্ণ ব্যাঙ্ক হিসাবে আত্মপ্রকাশ করা সত্যিই অভাবনীয়। আর সেই অভাবনীয় কাজ করে দেখিয়েছেন ম্যানেজিং ডিরেক্টর তথা সিইও তথা প্রতিষ্ঠাতা চন্দ্রশেখর ঘোষ। কলকাতার সায়েন্স সিটির অডিটোরিয়ামে দাঁড়িয়ে এই বঙ্গসন্তান বলেন, “আমাদের ব্যবসার একমাত্র দর্শন গ্রাহক। এখানে ছোট-বড় কোনও ভেদাভেদ নেই। সকল গ্রাহককেই সমান ভাবে সম্মান করা হয়।”

এই মুহূর্তে ৫০১টি শাখা ওবং ১ কোটি ৪৩ লক্ষ গ্রাহক নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে বন্ধন। এর কর্মী সংখ্যা সাড়ে ১৯ হাজার। ২৪টি রাজ্যে ২০২২টি পরিষেবা কেন্দ্র এবং ৫০টি এটিএম রয়েছে। এই অর্থবর্ষের শেষে দেশ জুড়ে ৬৩২টি শাখা এবং ২৫০টি এটিএম কেন্দ্র খোলার পরিকল্পনা রয়েছে বলে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন। রাজ্যের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গে সবচেয়ে বেশি শাখা রয়েছে বন্ধনের। এ রাজ্যে মোট ২২০টি শাখা রয়েছে বলে জানিয়েছেন ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষ। অন্য রাজ্যগুলির মধ্যে— বিহারে ৬৭, অসমে ৬০, মহারাষ্ট্রে ২১, উত্তরপ্রদেশ ও ত্রিপুরায় ২০ এবং ঝাড়খণ্ডে ১৫টি শাখা রয়েছে।

ব্যাঙ্ক সূত্রে জানানো হয়েছে, ৭১ শতাংশেরও বেশি শাখা খোলা হবে গ্রামীণ এলাকায়।

এ দিন বন্ধনের উদ্বোধন করতে এসে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি বলেন, “অনেক প্রতিভার জন্ম দিয়ে পশ্চিমবঙ্গ। বন্ধনের সাফল্যে আরও বাংলায় নতুন উদ্যোগপতির জন্ম দেবে।”

 তিনি আরও বলেন, “উন্নয়নের স্বার্থে সব সময় রাজ্যের পাশে থাকবে কেন্দ্র। রাজনীতি কোনও ভাবেই বাধা হয়ে দাঁড়াবে না।”

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন