ফের একগুচ্ছ বিমানবন্দর বেসরকারিকরণের পথে হাঁটতে চলেছে কেন্দ্র।

ফেব্রুয়ারিতে দেশের ছ’টি বড় বিমানবন্দর পরিচালনার দায়িত্ব বেসরকারি সংস্থার হাতে তুলে দিয়েছিল সরকার। শুক্রবার বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ, এএআই-এর চেয়ারম্যান গুরুপ্রসাদ মহাপাত্রের দাবি, পরের দফায় বেসরকারিকরণের পরিকল্পনা করা হচ্ছে আরও ২০-২৫টির। তাঁর আশা, তাতে অংশ নিতে পারে বিদেশি বিমানবন্দরগুলিও।

প্রথম দফায় দরপত্র দিয়ে গুয়াহাটি, আমদাবাদ, জয়পুর-সহ ছ’টি বিমানবন্দরের দায়িত্বই জিতে নিয়েছিল আদানি গোষ্ঠী। মহাপাত্র জানান, শীঘ্রই বছরে ১৫ লক্ষ যাত্রী চলাচল করে এমন আরও ২০-২৫টি বিমানবন্দরকে বেছে নেবে এএআই। তার পরে সেই সুপারিশ পাঠানো হবে বিমান পরিবহণ মন্ত্রকের কাছে। এ নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে তারাই।

বেসরকারি লগ্নি টানার পক্ষে কোন কোন বিমানবন্দর সব থেকে বেশি আকর্ষণীয় হতে পারে, তা ঠিক করতে ইতিমধ্যেই উপদেষ্টা নিয়োগ হয়েছে। মহাপাত্রের দাবি, ইতিমধ্যেই ডাবলিন ও মিউনিখের মতো বিদেশি বিমানবন্দর দর দেওয়ার ব্যাপারে আগ্রহও দেখিয়েছে। তবে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে তারা খতিয়ে দেখতে চায় প্রথম দফার বেসরকারিকরণের সাফল্য।