• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

গ্রাহকদের স্বস্তি দিয়ে আরটিজিএস, এনইএফটি-তে উঠে যাচ্ছে ব্যাঙ্ক চার্জ, এটিএম চার্জও কমার সম্ভাবনা

Monetary Policy
গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ

Advertisement

রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া রেপো রেট কমালে গাড়ি-বাড়ির ঋণের উপর সুদ কমার সম্ভাবনা থাকে। কিন্তু তার প্রভাব পরোক্ষ। বৃহস্পতিবার ঘোষিত আর্থিক নীতিতে রেপো রেট কমানোর পাশাপাশি এ বার এমন পদক্ষেপ করল আরবিআই, যাতে সাধারণ গ্রাহকদের স্বস্তি মিলবে প্রত্যক্ষ ভাবে। অনলাইন ট্রান্সফারের ক্ষেত্রে চার্জ পুরোপুরি তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল শীর্ষ ব্যাঙ্ক। অদূর ভবিষ্যতে চার্জ কমার সম্ভাবনা এটিএম থেকে টাকা তোলার ক্ষেত্রেও।

ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে সাধারণত দু’ভাবে টাকা ট্রান্সফার করা যায়— রিয়েল টাইম গ্রস সেটেলমেন্ট সিস্টেম (আরটিজিএস) এবং ন্যাশনাল ইলেকট্রনিক ফান্ডস ট্রান্সফার (এনইএফটি)। আরটিজিএস-এর ক্ষেত্রে যে অ্যাকাউন্টে পাঠানো হয়, তাতে সঙ্গে সঙ্গে টাকা ট্রান্সফার হয়ে যায়। এনইএফটির ক্ষেত্রে কিছুটা সময় লাগে। কখনও কখনও পুরো লেনদেন সম্পূর্ণ হতে সেই সময় দাঁড়ায় ২৪ ঘণ্টা। এই দুই ক্ষেত্রেই নির্দিষ্ট হারে গ্রাহকদের অ্যাকাউন্ট থেকে চার্জ কেটে নেয় ব্যাঙ্কগুলি। আরটিজিএস-এর ক্ষেত্রে যেহেতু তাৎক্ষণিক লেনদেন সম্পূর্ণ হয়ে যায়, তাই চার্জ কিছুটা বেশি। উভয় ক্ষেত্রেই এই ব্যাঙ্ক চার্জের উপর ধার্য হয় জিএসটি।

কিন্তু আরবিআই-এর নতুন ঘোষণার ফলে এই দুই ক্ষেত্রেই আর কোনও চার্জ দিতে হবে না গ্রাহকদের। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে ব্যাঙ্কগুলিকে এই নির্দেশিকা পাঠিয়ে দেবে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক। ব্যাঙ্কগুলিকেও সেই অনুযায়ী গ্রাহকদের নির্দিষ্ট এই সুবিধা দিতে হবে। সেই মর্মে নির্দেশিকা জারি করেছে শীর্ষ ব্যাঙ্ক। অর্থাৎ একই ভাবে ব্যাঙ্কগুলিও বিজ্ঞপ্তি দিয়ে গ্রাহকদের জানিয়ে দেবে।

২০১৪ সালে কেন্দ্র বিজেপি ক্ষমতায় আসার পরই ডিজিটাল লেনদেনে জোর দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এ দিনের আরবিআই-এর ঘোষণাতেও কার্যত সেই কথাই বলা হয়েছে। ডিজিটাল লেনদেনে আরও গতি আনতেই আরটিজিএস এবং এনইএফটিতে চার্জ তুলে দেওয়া হয়েছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: ফের রেপো রেট কমাল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক, কমতে পারে গাড়ি-বাড়ির ঋণের সুদের হার 

অটোমেটেড ট্রেলার মেশিন বা এটিএম নিয়ে অভিযোগের অন্ত নেই গ্রাহকদের। টাকা না বেরোলেও অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা কেটে নেওয়া, টাকা না থাকা, ২০০০ টাকাছাড়া ছোট নোট অমিল, নিরাপত্তাহীনতা, জালিয়াতি, মাঝেমধ্যেই চার্জ ধার্য করার মতো ভুরি ভুরি অভিযোগ টাকা তোলার লাইনে দাঁড়ালেই শোনা যায়। এ বার এই ক্ষেত্রেও কিছুটা স্বস্তি মেলার সম্ভাবনা আরবিআই-এর নতুন ঘোষণায়। সংশ্লিষ্ট সব পক্ষকে নিয়ে একটি কমিটি গঠন করার কথা জানিয়েছে শীর্ষব্যাঙ্ক। কমিটির চেয়ারম্যান হচ্ছেন ইন্ডিয়ান ব্যাঙ্কস অ্যাসোসিয়েশনের সিইও। আগামী দু’মাসের মধ্যে ওই কমিটি রিপোর্ট দেবে। দু’মাস অন্তর আর্থিক নীতির পর্যালোচনা করে নতুন নীতি ঘোষণা করে শীর্ষ ব্যাঙ্ক। ফলে পরের বার ঘোষণাতেই সুখবর থাকতে পারে বলে মনে করছে সংশ্লিষ্ট মহল। এটিএম-এর এই চার্জ কমতে পারে বা আরটিজিএস-এনইএফটির মতোই পুরোপুরি তুলে দেওয়ার ঘোষণাও হতে পারে।

আরও পডু়ন: রাজনীতি বিষয়ক ক্যাবিনেট কমিটি থেকে বাদ রাজনাথ, অমিত ৮টিতেই

সেভিংস ও ফিক্সড ডিপোজিটে সুদের হার ক্রমাগত কমানো, নূন্যতম গড় ব্যালান্স রাখা, এটিএম-এ মাসে কত বার টাকা তোলা যাবে তা নির্ধারিত করে দেওয়ার মতো সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ গ্রাহকরা। তার সঙ্গে ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে এসএমএস চার্জ, সার্ভিস চার্জের মতো নানা খাতে ডেবিট করা নিয়ে গোটা ব্যাঙ্কিং পরিষেবার উপরেই ক্ষোভ বাড়ছে গ্রাহকদের। আরবিআই-এর সিদ্ধান্তে সেই ক্ষোভ কিছুটা হলেও প্রশমিত হবে বলেই মত পর্যবেক্ষকদের।

যদিও ব্যাঙ্কিং-সহ গোটা অর্থনীতির উপরেই এর প্রভাব পড়ার সম্ভাবনাও রয়েছে। ইতিমধ্যেই প্রভাব পড়েছে সেনসেক্স-নিফটিতে। বৃহস্পতিবার বাজার খোলার সময় থেকেই নিম্নমুখী ছিল সূচক। আরবিআই-এর নয়া নীতি ঘোষণার পর কার্যত ধস নামতে শুরু করে শেয়ার বাজারে। মুম্বই শেয়ার সূচক ৫০০ পয়েন্টেরও বেশি নেমেছে। ন্যাশনাল ফিফটি বা নিফটির পতন ১৫০ দেড়শো পয়েন্টেরও বেশি।

ব্যাঙ্কিং সেক্টরের অন্য একটি মহলের মতে, চার্জ কাটা হত বলে এনইএফটি-আরটিজিএস-এর মাধ্যমে লেনদেনের ক্ষেত্রে ব্যাঙ্কের দায়বদ্ধতা ছিল অনেক বেশি। কিন্তু চার্জ উঠে গেলে সেই দিকটি অবহেলিত হতে পারে। ফলে অনলাইনে প্রতারণা বাড়ার আশঙ্কাও উড়িয়ে দিচ্ছেন না অনেকে।

মূল্যবৃদ্ধি, মুদ্রাস্ফীতি, পেট্রোপণ্যের দাম বৃদ্ধি - অর্থনীতির সব খবর বাংলায় পেয়ে যান আমাদের ব্যবসা বিভাগে।

এবার শুধু খবর পড়া নয়, খবর দেখাও। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের YouTube Channel - এ।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন