• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ফোনেই ধার, ছোট শিল্প নিয়ে সওয়াল

phone
প্রতীকী ছবি।

আমজনতার জীবনের অবিচ্ছেদ্য অঙ্গ যে স্মার্টফোন, ছোট শিল্পোদ্যোগীদের সহজে ঋণ দিতে তাকেই হাতিয়ার করার পক্ষে সওয়াল করল রাজ্য। রোজকার জীবনযাপনে তথ্যপ্রযুক্তির গুরুত্ব বোঝাতে গিয়ে তুলে আনা হল অনলাইনে নাগরিক পরিষেবা ছড়ানোর কাজে কম্পিউটারের পরে এ বার অ্যাপ আনার কথাও। শুক্রবার ইনফোকমের মঞ্চ থেকে রাজ্যের তথ্যপ্রযুক্তি সচিব দেবাশিস সেনের বার্তা, সকলের কাছে কম্পিউটার নেই তো কী হয়েছে! ঘরে ঘরে স্মার্ট ফোন তো ঢুকে পড়েছে। তাতে ফুলিয়ার তাঁত শিল্প বা স্বনির্ভর গোষ্ঠীর মতো ছোট উদ্যোগকে ঋণ দেওয়ার সম্ভাবনা খতিয়ে দেখতে ব্যাঙ্ক ও তথ্যপ্রযুক্তি শিল্পের কাছে আর্জি জানান তিনি। যে পদ্ধতিতে আধার ও প্যানের তথ্য দিয়ে মোবাইলেই ব্যক্তিগত ঋণ মেলে এখন। ওরাক্‌লকে রাজ্যে তথ্য কেন্দ্র খুলতে আমন্ত্রণও জানান তিনি।

সচিবের দাবি, তাঁদের ই-ডিস্ট্রিক্ট প্রকল্পে রাজ্যে নেট মারফত প্রায় ৯২ লক্ষ মানুষের কাছে বিভিন্ন নাগরিক পরিষেবা পৌঁছেছে। কম্পিউটার যেখানে নেই, সেখানে ‘অ্যাপ’ চালুর চেষ্টা হচ্ছে। প্রাথমিক পরীক্ষা সফল হলে এই অর্থবর্ষে পরের ধাপের পরীক্ষা শুরু হবে। তাঁর বক্তব্য, সমাজের নীচের স্তরে ভাল প্রযুক্তি পৌঁছনো জরুরি। তাতে লাগবে প্রশিক্ষিত কর্মী। যা নতুন কাজের জগৎ তৈরি করবে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন